আসসালামু আলাইকুম.
আশা করি সবাই ভালো আছেন,আর আপনাদের দোয়ায় আমিও ভালো আছি।
আজকে আবারও নতুন একটা টিপস নিয়ে হাজির হলাম
আপনাদের মাঝে আমি।
 

আজকের পোস্টে, অনলাইনে ট্রেনের অবস্থান জানার উপায়  এবং অফলাইনে ট্রেনের লোকেশন ট্রাকিং করতে পারবেন।

বাংলাদেশের যত দূরপাল্লার বাহন রয়েছে, যেমনঃ বাস, স্ট্যান্ডস, লঞ্চ, তার মধ্যে সবথেকে জনপ্রিয় হচ্ছে ট্রেন।

আপনি যদি নিরাপদে এবং ভালোভাবে ও আরামদায় গন্তব্যে পৌঁছাতে চান তাহলে ট্রেনের বর্তমান অবস্থা আপনার জানা উচিত, আপনি যদি এখন বলেন,  ট্রেন কোথায় আছে কিভাবে জানব, তাহলে আমি এখন দেখাবো ট্রেন কোথায় আছে দেখার নিয়ম।

আজকে তিনটি উপয় দেখাব, ট্রেনের অবস্থান জানার জন্য। চলুন শুরু করা যাক।

ট্রেনের লোকেশন জানার উপায়

আপনি যেকোনো সময় ট্রেনের লোকেশন (train live location) জানতে পারবেন, বা যেকোনো ট্রেন ট্রাকিং করতে পারবেন, সেগুলো আমি দেখাবো।

মোবাইলের ট্রেনের অবস্থান জানার উপায় রয়েছে তিনটি। সেগুলো হলোঃ

১। ট্রেন লোকেশন মেসেজ (train tracking by sms-এসএমএস এর মাধ্যমে) ট্রেনের লোকেশন জানার উপায়

২। ট্রেনের লোকেশন অ্যাপ (br explorer apk-মোবাইল অ্যাপ্লিকেশনের মাধ্যমে) ট্রেনের লোকেশন জানার উপায়

৩। অনলাইনের মাধ্যমে (online train location bd-ট্রেন লোকেশন ট্রাকিং ওয়েবসাইটের মাধ্যমে) ট্রেনের লোকেশন জানার উপায়

আপনারা কিভাবে এই তিনটি উপায়ে, ট্রেনের লাইভ লোকেশন(train live location bd), অর্থাৎ বর্তমানে লোকেশন কোথায় আছে সে সম্পর্কে বিস্তারিত আপনাদের জানাবো।

অনলাইনে ট্রেনের অবস্থান জানার উপায়

আপনার যদি উপরের তিনটি উপায় জানা থাকে, তাহলে আপনি ট্রেন মিস করবেন না , এছাড়াও অনেক সুবিধা রয়েছে, আপনি যদি বাড়ি থেকে বের হওয়ার আগেই অথবা অফিস থেকে বের হওয়ার আগেই, ট্রেন লোকেশন জানতে পারেন, জন্মদিনের লাইভ লোকেশন ট্র্যাক করতে পারেন, তাহলে কতই না ভালো হয়।

আজকের এই পোস্টে, ট্রেনটির লাইভ ট্রাকিং সহ, ট্রেনের খবর জানার উপায়ও আপনাদের জানাবো, যাতে আপনারা কোন ট্রেন কখন পৌঁছাবে,  কত মিনিট লেট হবে, সব বিষয়ে জানতে পারেন।

এসএমএস দিয়ে ট্রেনের অবস্থান জানার উপায়

প্রথম ট্রেনের অবস্থান জানার প্রথম উপায় হচ্ছে, ট্রেনের অবস্থান জানার মেসেজ(train location bd by sms) এর মাধ্যমে, যা আপনারা যে কোন মোবাইলের মাধ্যমেই জানতে পারবেন,

চলুন তাহলে দেখা যাক কিভাবে আপনারা আপনাদের স্মার্টফোন ছাড়াই(train location sms) , যেকোনো মোবাইলের মাধ্যমে, ট্রেন লোকেশন ম্যাসেজ পাঠাবেন(train tracking sms code)।

ট্রেনের অবস্থান জানতে এসএমএস করতে নিচের ধাপ গুলো অনুসরণ করুনঃ

  • প্রথমেই আপনার ফোনের মেসেজ অপশনে যান।
  • এরপরে নম্বরের জায়গায়  ১৬৩১৮ নাম্বারটি লিখুন।
  • তারপর মেসেজ অংশে লিখুন, TR Train Name/Code No.
  • তারপর সেন্ট অপশনে চাপ দিন বা পাঠিয়ে দিন।
  • মেসেজ ফরমেট আপনি যাতে ভালোমতো বুঝতে পারেন, সেজন্য নিচে একটি Sundarban Express এর উদাহরণ দেওয়া হল।

 

Send Number: 16318

write message: TR 725

 

এই মেসেজটি পাঠানোর কিছুক্ষণের মধ্যেই আপনার মোবাইলে ১৬৩১৮ থেকে একটি মেসেজ আসবে, এখানে আপনি দেখতে পারবেন ট্রেনের লাইভ লোকেশন বা অন্য আরো তথ্য থাকবে, যার মাধ্যমে আপনি জানতে পারবেন ট্রেনটি বর্তমানে কোথায় রয়েছে, মেসেজটি পাঠাতে আপনার খরচ হবে ৪ টাকা ৬০ পয়সা

Example:

দ্রুতযান এক্সপ্রেস ট্রেনের লোকেশন জানার উপায়

এসএমএস এর মাধ্যমে খুব সহজেই আপনারা দ্রুতযান এক্সপ্রেস ট্রেনের অবস্থান জেনে নিতে পারবেন। দ্রুতযান এক্সপ্রেস ট্রেনের অবস্থান জানার জন্য মোবাইলের মেসেজ অপশনে গিয়ে (TR 757) ব্র্যাকেটের ভেতর উক্ত লেখাটি কপি করে 16318 এই নাম্বারে এসএমএস পাঠিয়ে দিন। এরপর অল্প কিছুক্ষণের মধ্যেই আপনার মোবাইলে আরো একটি মেসেজ চলে আসবে সেখানে থেকে দ্রুতযান এক্সপ্রেস ট্রেনের অবস্থান জানতে পারবেন।

এছাড়াও সকল ট্রেনের কোড নাম্বার আমি নিচে দিয়ে দিব, আশা করি আপনারা উপকৃত হবেন।

ট্রেনের অবস্থান জানার উপায়: দুইঃ

ট্রেনের অবস্থান বা লোকেশন জানার দ্বিতীয় উপায়টি হচ্ছে স্মার্টফোনের মাধ্যমে, এর জন্য আপনাকে প্রথম যে কাজটি করতে হবে তা হচ্ছে, নিচের লিঙ্ক থেকে অ্যাপটি ডাউনলোড করুন।

App Name: BR Explorer.apk

তারপর নিচের ছবির মতো অ্যাপটি ইন্সটল করে ওপেন করুন।

 

এখানে আপনি অ্যাপের রেটিং ডাউনলোড এবং কিছু স্ক্রিনশটও দেখতে পারবেন,তাছাড়া অ্যাপটি আপনি কিভাবে ব্যবহার করবেন তা আমি নিচে ছবির মাধ্যমে আপনাকে বুঝিয়ে দিব।

BR Explorer কিভাবে একাউন্ট রেজিস্ট্রেশন করবেনঃ এবং ট্রেনের লোকেশন জানার উপায়

এই ট্রেনের লোকেশন অ্যাপ ব্যবহার করার জন্য আপনাকে অবশ্যই অ্যাপটিতে রেজিস্ট্রেশন করতে হবে, তাছাড়া আপনি একটি ব্যবহার করতে পারবেন না, চলুন তাহলে আপনাকে দেখিয়ে দি, কিভাবে আপনি ট্রেন লোকেশন এপপ্স বাংলাদেশ, BR Explorer রেজিস্ট্রেশন করবেন,

অ্যাপটি ওপেন করার পরে নিজের মত স্ক্রিনশট অনুযায়ী আসবে, যেভাবে আমি লিখে দিয়েছি,  সেই অনুযায়ী আপনারা ফর্মটি পূরণ করুন, যেমনঃ

  • প্রথমে আপনি একটি সঠিক মোবাইল নম্বর দিন।
  • তারপর আপনার ইমেইল দিন।
  • তারপর একটি স্ট্রং পাসওয়ার্ড দিন।
  • তারপর একইভাবে কনফার্ম পাসওয়ার্ড দিন।
  • তারপর রেফারেল কোড অনুযায়ী এটা দিতে পারেন।
  • তারপরে আপনার ভোটার আইডি কার্ড টা দিন,বলে রাখা ভালো জাতীয় পরিচয় পত্র ইসকন করা বাধ্যতামূলক নয় আপনি চাইলে এটা এড়িয়ে যেতে পারেন।
  • তারপর টার্মস অফ কন্ডিশনস টিক চিহ্ন দিন।
  • তারপরে সাবমিট দিন।

 

এখন আপনি যে মোবাইল নাম্বারটা দিয়েছেন ওই মোবাইল নাম্বারে একটি otp যাবে, সেটা এখানে, বসিয়ে ভেরিফাই ক্লিক করলেই ভেরিফাই হয়ে যাবে।

ব্যাস হয়ে গেল আপনার অ্যাকাউন্ট রেজিস্ট্রেশন করা, ট্রেনের অবস্থান জানার উপায় জানতে পারলেন, এখন আপনি চাইলেই সহজেই যে কোন ট্রেনের লোকেশন ট্রাক করতে পারবেন, এবং ট্রেনের অবস্থান কোথায় আছে সেটা জানতে পারবেন।

কিভাবে অ্যাপ দিয়ে ট্রেন নির্বাচন করবেনঃ এবং ট্রেনের লোকেশন জানার উপায়

আপনি যদি সফলভাবে, BR Explorer একাউন্ট খুলে থাকেন তাহলে, অ্যাপ এর উপরে ডান পাশের মেনুবারে এ ক্লিক করুন। তারপর ট্রেনের বর্তমান অবস্থা জানতে, বা ট্রেনের লাইভ লোকেশন জানতে, বা ট্রেনটি কোথায় আছে জানতে, Location Train অপশনে ক্লিক করুন। নিচের মত।

 

এরপর পরবর্তী পেজে আমি দেখাবো কিভাবে আপনি সঠিক ট্রেনটি নির্বাচন করে , ট্রেনের লাইভ লোকেশন দেখতে পারেন।

ট্রেন লাইভ লোকেশন কিভাবে দেখবেনঃ

এই অ্যাপটি সর্বশেষ কাজ, নিচের ছবিটি আপনি লক্ষ্য করলে দেখতে পারবেন, যখন আপনি ট্রেনের নম্বর বা ট্রেনের নাম লিখে সার্চ দিবেন,তখন নিজের মত দুইটি ট্রেন দেখতে পাবেন,

১। ( UP) লেখা দেখতে পাবেন, যে ট্রেনগুলো ঢাকার উদ্দেশ্যে যায় সেগুলো আপ ট্রেন।

২। (Down) লেখা দেখতে পাবেন, যেগুলো ঢাকা থেকে ছেড়ে আসে সেগুলো ডাউন ট্রেন।

এখন আপনি যে ট্রেনটিতে ভ্রমন করতে চান সেটার উপর ক্লিক করুন।

নিজের মত দেখতে পারবেন, কাঙ্ক্ষিত ট্রেনের নামের উপর ক্লিক করলে, একটা কনফারমেশন মেসেজ পাবেন, এখানে Yes বাটন ক্লিক করুন।

 

এখানে আপনি, নির্বাচিত চেয়ারম্যানের অবস্থান, গতিবেগ, কোসের সংখ্যা সহ যাবতীয় তথ্য দেখতে পাবেন,এছাড়াও গুগল ম্যাপে যদি আপনি ট্রেনের লোকেশন দেখতে চান, তাহলে Open Train Location On Map বাটনে ক্লিক করুন।

 

জেনে রাখুনঃ এই অ্যাপটিতে রেজিস্ট্রেশন করলে প্রথম কিছু ট্রেন ফ্রিতে লোকেশন ট্রাকিং করার সুযোগ দেয়, তারপর টাকা বা পয়েন্টের মাধ্যমে আপনি ট্রেনের অবস্থান জানতে পারবেন  পারবেন।

সুন্দরবন এক্সপ্রেস ট্রেনের লোকেশন জানার উপায়

চলুন তাহলে এবার দেখে নেওয়া যাক কিভাবে আপনারা এই ভাবে লোকেশন ট্রাকিং করবেন, নিচের ছবি দিয়ে তা দেখানো হলো।

 

তারপর উপরের ছবির মতো করুন।

ট্রেনের লোকেশন ট্র্যাকিং,ট্রেনের লাইভ লোকেশন

তারপর আপনি যেখান থেকে উঠবেন, সেটা সিলেক্ট করুন।

 

 

দেখুন এই ট্রেন লোকেশন অ্যাপস বাংলাদেশ  train location bd এর মাধমে আপনি জানতে পারবেন। .

অনলাইনের মাধ্যমে-train live location online-তিন

প্রথমে আপনি আপনার ব্রাউজারের মাধ্যমে  www.etrain.info/in এই ওয়েবসাইটে প্রবেশ করুন, নিচের মতো পেজ দেখতে পাবেন।

 বিঃদ্রঃ এটা সুধুমাত্র ইন্ডিয়ার ট্রেনের জন্য শেয়ার করা হয়েছে।

তারপর আপনি এখানে আপনার, ফরমটি সিলেট করে আপনি ট্রেনে যাবতীয় তথ্য আপনি এখান থেকে সরাসরি ট্রেনের লোকেশন দেখে, ট্রেনের অবস্থান জানতে পারবেন ।

সকল ট্রেনের নাম ও সকল ট্রেনের কোড নাম্বার

আপনি যদি আপনার মোবাইলের মাধ্যমে, ট্রেনের লোকেশন জানার মেসেজ অপশনে ক্লিক করে, ট্রেনের লোকেশন জানতে চান তাহলে আপনার প্রয়োজন পড়বে ট্রেনের কোড।

এছাড়াও আপনি যখন অ্যাপ দিয়ে বিভিন্ন ট্রেনের নাম দিয়ে ট্রেনের লোকেশন জানার উপায় খুঁজতে যাবেন তখন সহজে খোঁজার জন্য আপনার ট্রেনের কোড প্রয়োজন পড়বে, এজন্য নিচের ছবিতে আপনি যাবতীয় ট্রেনের নাম ট্রেনের কোড নম্বর, এবং ট্রেনের নম্বর দেখতে পাবেন।

এই ছবিটি আপনি অবশ্যই ফোনে সেভ করে রাখতে পারেন, তাহলে যে কোন প্রয়োজনের সময় আপনি আপনার পছন্দের ট্রেনের কোড নম্বরটি সহজেই পাবেন।

 

এছাড়াও আপনি এই eticket.railway.gov.bd ওয়েবসাইটের মাধ্যমে, ট্রেনের টিকিট কাটার সময় ট্রেনের যাবতীয় তথ্য পাবেন।

বাংলাদেশ রেলওয়ে সম্পর্কে সাধারণ জ্ঞান

১. প্রতিষ্ঠাকাল: বাংলাদেশ রেলওয়ের প্রতিষ্ঠা ১৫ নভেম্বর ১৮৬২ সালে বৃটিশ শাসনামলে।

২. মোট রেলপথ: বাংলাদেশে রেলপথের মোট দৈর্ঘ্য প্রায়  ৩,৬০০ কিলোমিটার (২,২০০ মাইল)।

৩. দুটি জোন: বাংলাদেশ রেলওয়ে দুটি জোনে বিভক্ত – একটি অংশ যমুনা নদীর পূর্ব পাশে এবং অপরটি পশ্চিম পাশে।

৪. প্রধান সদর দপ্তর: রেলওয়ের প্রধান সদর দপ্তর ঢাকা রমনার আব্দুল গনি রোডে অবস্থিত।

৫. ইঞ্জিন: বাংলাদেশ রেলওয়ের কাছে বিভিন্ন ধরনের ডিজেল ও বৈদ্যুতিক ইঞ্জিন রয়েছে।

৬. পণ্য পরিবহন: রেলওয়ে বাংলাদেশের অন্যতম প্রধান পণ্য পরিবহন মাধ্যম।

৭. রেলওয়ে স্টেশন: ২০২১ সালের হিসাবে বাংলাদেশে মোট রেলওয়ে স্টেশন রয়েছে ৪৯৩টি, ২০২৩-২০২৪ সালে পদ্মা সেতু এবং কক্সবাজার রুটে আরো কিছু নতুন স্টেশন যুক্ত হয়েছে। এর মধ্যে কক্সবাজার রুটে কক্সবাজার রেলওয়ে স্টেশন সহ নতুন ৮ টি স্টেশন যুক্ত হয়েছে, মোট রেলওয়ে স্টেশন= ৫০১টি

৮. প্রথম রেল লাইন: বাংলাদেশে প্রথম ১৮৬২ সালের ১৫ই নভেম্বর চুয়াডাঙ্গার দর্শনা থেকে কুষ্টিয়ার জগতি পর্যন্ত রেলপথ স্থাপনের মাধ্যমে বাংলাদেশ রেল যুগে প্রবেশ করে।

৯. আন্তর্জাতিক সংযোগ: বাংলাদেশ রেলওয়ের ভারত এবং মিয়ানমারের সঙ্গে আন্তর্জাতিক সংযোগ রয়েছে।

১০. প্রধান ট্রেন সার্ভিস: জনপ্রিয় ট্রেন সার্ভিসগুলোর মধ্যে শোভন, দ্রুতযান, সুবর্ণ, এবং অগ্নিবীণা উল্লেখযোগ্য।

FAQ Train Location

১. আমি কীভাবে ট্রেনের বর্তমান অবস্থান জানতে পারি?

আপনি অফিসিয়াল রেলওয়ে ওয়েবসাইট, মোবাইল অ্যাপস, তৃতীয়-পক্ষ ট্র্যাকিং অ্যাপস, এসএমএস সেবা, এবং কল সেবার মাধ্যমে ট্রেনের বর্তমান অবস্থান জানতে পারেন। এসব পদ্ধতির মাধ্যমে আপনি রিয়েল-টাইমে ট্রেনের অবস্থান এবং অন্যান্য তথ্য পেতে পারেন, যা আমি এই পোস্ট দেখিয়েছি।

২. কোন অ্যাপস ব্যবহার করে আমি ট্রেনের অবস্থান চেক করতে পারি?

  • BR Explorer app
  • Bangladesh Train Tracker
  • Train BD app
  • Rail Sheba

৩. আমি কীভাবে এসএমএস এর মাধ্যমে ট্রেনের অবস্থান জানতে পারি?

আপনি 16318 নম্বরে ট্রেন নম্বর লিখে এসএমএস পাঠালে ট্রেনের বর্তমান অবস্থান সম্পর্কে তথ্য পাবেন। উদাহরণস্বরূপ, আপনি TR 725 লিখে 16318 নম্বরে পাঠাতে পারেন।

৪। বাংলাদেশ রেলওয়ের অফিসিয়াল অ্যাপ কোনটি?
Rail Sheba হল বাংলাদেশ রেলওয়ের অফিসিয়াল অ্যাপ, অনলাইনে টিকিট কেনার জন্য ঝামেলামুক্ত এবং সহজবোধ্য অভিজ্ঞতা প্রদান করে।

আশা করি আপনি অনলাইনে ট্রেনের অবস্থান জানার উপায়, সম্পর্কে বুঝতে পেরেছেন।
যদি না বুঝতে পারেন, ১০ বার জিগ্যেস করুন। সমাধান দিতে চেষ্টা করব। টিউন লিখতে কষ্ট ফিল করি না, তাহলে Reply দিতে দ্বিধা করব কেন.!!

সৌজন্য:-
MainitBD.Com

সবাইকে ধন্যবাদ।আজকের মতো এখানেই বিদায় নিলাম,হাজির হবো আরও নিত্য নতুন টিপস নিয়ে আমি।
আল্লাহ হাফেজ.

4 thoughts on "ট্রেনের লোকেশন জানার উপায় | ৩টি উপায়ে জেনে নিন ট্রেনে কোথাও আছে।"

  1. iyajuddin Contributor says:
    3no. Way ta vul…oita indian site
    1. Md Asif Khan Author Post Creator says:
      Trickbd তে, ইন্ডিয়ান ভিজিটর থাকার কারণে ০৩নং এই সাইট টি শেয়ার করা হয়েছে, ওখানে বিঃদ্রঃ দিলে লেখা হয়েছে।
  2. S A Suvo Sheikh Contributor says:
    যাচ্ছে তাই লিখে যাচ্ছেন মিয়া।
    নিজের লেখাটা নিজে একবার পড়ে তো দেখেন !
    ইন্ডিয়ান রেলওয়ের ওয়েবসাইট বাংলাদেশের রেল দেখা যাবে?
    এটা কেমন কথা ভাই 🤣🤣🤣
  3. Md Asif Khan Author Post Creator says:
    Trickbd তে, ইন্ডিয়ান ভিজিটর থাকার কারণে ০৩নং এই সাইট টি শেয়ার করা হয়েছে, ওখানে বিঃদ্রঃ দিলে লেখা হয়েছে। thank you

Leave a Reply