মাইক্রো ব্লগিং কী? ব্লগ দিয়ে ইনকাম করুন হাজার হাজার টাকা

আপনি ব্লগিং শুরুতে প্রথম মাসের মধ্যে একশত টাকা উপার্জন করবেন বলে মনে করেন।

মাইক্রো-ব্লগিংয়ের মাধ্যমে আমরা এটি কীভাবে করবো মাইক্রো ব্লগিং ব্লগিংয়ের একটি অংশ যা কোন ব্যবহারকারী নির্দিষ্ট বিষয় এবং তার সুবিধার মাইক্রো-পোস্ট ভাগ করে না।

এটি ভিজিটর কী অনুসন্ধান করছে সে সম্পর্কে আরো জানতে সাহায্য করে।

সফল ব্লগার হয়ে উঠতে কীভাবে মাইক্রো ব্লগিং করা হয় মাইক্রো-ব্লগিং মাইক্রো ব্লগিং কী?

এটি একটি ব্লগিং বিষয়ক বিষয়। আপনি যে নির্দিষ্ট বিষয় বা তার উপ-বিভাগের ধরনের সম্পর্কে কথা বলুন। এর গুরুত্ব বা সুবিধা এবং সেই পণ্য বা জিনিসটির অসুবিধা

কিভাবে মাইক্রো ব্লগিং মাইক্রো ব্লগিং শুরু করবেন

আপনার বিষয় নির্বাচনের উপর নির্ভর করে দুটি বিষয় বলতে পারেন: •

দীর্ঘমেয়াদি •

স্বল্পমেয়াদী দীর্ঘ মেয়াদী:

দীর্ঘমেয়াদী মাইক্রো ব্লগিংয়ের ক্ষেত্রে আপনি ফ্লিপকার্ট / আমাজন গ্রাহক পরিষেবা, মেনস স্যামসাং স্মার্টওয়াচ ইত্যাদি কীওয়ার্ড পছন্দ করেছেন। একটি শব্দ চিরতরে চান? ফ্লিপকার্ট এবং আমাজন মত একটি বিশাল ই-কমার্স সাইট, যা ভবিষ্যতেও থাকবে। স্যামসাং স্মার্টওয়াচ ইত্যাদি। জুতা এবং নৈমিত্তিক পুরুষদের জন্য মহিলাদের জন্য একটি বড় চাহিদা রয়েছে, তাই মাইক্রো-ব্লগিং শুরু করার জন্য এটি একটি দুর্দান্ত ধারণা। আপনি একটি মতামত দিতে এবং তার বৈশিষ্ট্য পর্যালোচনা করতে পারেন।

স্বল্পমেয়াদী:

স্বল্পমেয়াদী মাইক্রো-ব্লগিংয়ের জন্য, আপনাকে রিলায়েন্স জিওরের মতো একটি কীওয়ার্ড নির্বাচন করতে হবে, যারা 2019 সালে ভারতের নির্বাচন পরিচালনা করবে বা ট্রেন্ড বা লোকেরা কী অনুসন্ধান করছে। এই সীমিত সময়ের মধ্যে,

সহজে বোঝানোর জন্য মনে করুন ২০-১২-২০১৯ এতো তারিখে ট্রিক বিডিতে সাইন আপ করলেই পাচ্ছেন ৫০০ টাকা উক্ত ডেট অভার হলে কেউ আপনার এই পোস্ট সামনে পেলেও পড়বে না

কিন্তু কোন জিনিস বা দ্রব্যের পোস্ট করলে শত বছর পরেও পোস্ট পড়ার সম্ভাবনা থাকে

আপনি দীর্ঘমেয়াদী মাইক্রো-ব্লগিংয়ের চেয়ে বেশি আয় উপার্জন করতে পারেন তবে এই আয় কেবল 2-3 মাস বা তার কম। মাইক্রো ব্লগিংয়ের একটি শব্দে মাইক্রো ব্লগিং রিসার্চের জন্য একটি কীওয়ার্ড কীভাবে গবেষণা করবেন তা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। শুধুমাত্র কীওয়ার্ড আপনাকে কত ট্রাফিক বা কত উপার্জন করতে পারে তা বলতে পারে। কীওয়ার্ডের জন্য অনেক অর্থ এবং বিনামূল্যে সরঞ্জাম রয়েছে, তবে আমার কাছে কিছু বিনামূল্যের সরঞ্জাম রয়েছে যা ব্যবহার করা হয়: • Ubersuggest • কীওয়ার্ড সর্বত্র আছে • Google সর্বত্র কীওয়ার্ড সম্মান করে এই সরঞ্জামগুলি আপনাকে কম প্রতিযোগিতার সাথে উচ্চ CPC কীওয়ার্ডগুলি খুঁজে পেতে সহায়তা করতে পারে। মনে রাখবেন, মাইক্রো-ব্লগিং লো লোগোটিতে উচ্চ অনুসন্ধানের পরিমাণ রয়েছে এবং সিপিপি কম প্রতিযোগিতামূলক। • দ্রুততম র্যাঙ্ক কীওয়ার্ড করুন Google এ অনুসন্ধান করুন অনুসন্ধান ভলিউম, এসইও অসুবিধা এবং Ubersuggest

শুধু লিংক দিয়ে দায় মুক্ত হবেন না


ব্লগিং একটি সময় সাপেক্ষ ব্যাপার। তাই অনেক সময় দেখা যায় অনেকে তাদের পোষ্টে অন্য আরেকটি অনলাইন পোষ্টের লিংক যোগ করে দিয়ে দায়মুক্ত হতে চান। এই ভুলটি কখনই করবেন না। পাঠক আপনার লিংকের মাধ্যমে কোন মজার কিছু পড়তে চান না। এমনও হতে পারে পাঠক আপনার ব্লগ থেকে আপনি তাকে যেখানে পাঠাচ্ছেন সেই ব্লগটি বেশি পছন্দ করে ফেলতে পারে। ফলে আপনি পাঠক হারাবেন। বরং পাঠক ধরে রাখতে আপনার ব্লগে উক্ত লিংকের উপর আপনার মতামত জানিয়ে বিস্তারিত জানার জন্য লিংকটি দিয়ে দিতে পারেন। মনে রাখবেন কোন মন্তব্য ছাড়া একটি লিংক পাঠক হারানোর প্রথম লক্ষণ। 


কখনই কোন অনলাইন ব্লগ বা ওয়েবসাইট থেকে লেখা চুরি করে কপিরাইট লঙ্ঘনের চেষ্টা করবেন না। এতে যেমন আপনি আইনি জটিলতায় পড়তে পারেন তেমনি পাঠকও হারাতে পারেন। তবে আপনি যদি কোন ওয়েবসাইটে এমন কোন তথ্য পান যা আপনি আপনার ব্লগে আলোচনা করতে চান তাহলে ঐ ব্লগ বা ওয়েবসাইটের একটি লিংক যুক্ত করে দিন, তাহলেই আর কোন সমস্যা থাকবে না তবে কপি পেস্ট এড়িয়ে চলাটাই অতি উত্তম। 

[h2] লেখাকে সাজান [/h2a]
আপনার ব্লগ পোষ্টের দৃষ্টিনান্দকিকতা আপনার আলোচনার বিষয় বস্তুর মতোই গুরুত্বপূর্ণ। আপনার ব্লগ পোষ্টটি ছোট ছোট অনেকগুলো প্যারা করে সাজান। প্রতিটি প্যারায় সম্ভব হলে দুই বা তিনের অতিরিক্ত বাক্য ব্যবহার করা থেকে বিরত থাকুন। বেশিরভাগ পাঠক অনেক বাক্যের জড়োসড়ো করে সাজানো ব্লগ পড়তে আগ্রহী হন না। ব্লগে যথেষ্ঠ ফাকা জায়গা পাঠকের দৃষ্টি আকর্ষনে সক্ষম হয় এবং পাঠককে সম্পূর্ণ ব্লগ পোষ্টটি পড়তে আগ্রহী করে। তবে সবসময় অল্প কথায় পোষ্ট দেবার চেষ্টা করুন যা পাঠক সহজে পড়তে পারে। 

সামান্য ভাবে ট্রিক বিডির / টেকটিউনস এর কত বিডির কথা চিন্তা করুন
অনেকেই ভাবছেন ডোমেইন আর হোস্টিং এর কথা ডোমেইন আর হোস্টিং ছাড়াও আপনি ব্লগস্পটে দিয়ে কাজ করতে পারেন একেবারে ফ্রিতে করতে পারেন

পার্থক্যে হচ্ছে ওয়ার্ডপ্রেস একটু সহজে সব কিছু করাযায় তাছাড়া আর কিছু না

ব্লগ সম্পর্কে হেল্প পেতে জইন করুন
মেসেঞ্জার গ্রুপে
]✉📢click to join

আমার ব্লগ

click to visit my blog


ধন্যবাদ কষ্ট করে পড়ার জন্য

11 thoughts on "মাইক্রো ব্লগিং কী? ব্লগ দিয়ে ইনকাম করুন হাজার হাজার টাকা"

  1. Forhad Rahman Contributor says:
    Translator 🐸🐸🐸
    1. Shakil khan Shakil khan Author Post Creator says:
      Kothai?????? ফালতু কথা বাদ দিন
      1. Forhad Rahman Contributor says:
        Apnar poster likha gulo pore none hocche English theke banglay thanslate korse. Kisu kisu kothay orther dik diye ektar sathe arektar mil nai.
        Example: একটি শব্দ চিরতরে চান?, মাইক্রো-ব্লগিং লো লোগোটিতে উচ্চ অনুসন্ধানের পরিমাণ রয়েছে, Google সর্বত্র কীওয়ার্ড সম্মান করে
  2. Bear Grylls Bear Grylls Contributor says:
    Translation না করে নিজে লিখার ট্রাই করেন।
    পোস্টের আগা মাথা কিছুই বুজি নাই
    1. Shakil khan Shakil khan Author Post Creator says:
      Kothai??????
    2. Shakil khan Shakil khan Author Post Creator says:
      বোকামি
  3. স্বপ্ন স্বপ্ন Author says:
    বানানের দিকে সতর্ক হন, এতো ভুল।
    আর হেডিং কো‌ডিং না দিয়ে বডিতে বোল্ড করে লিখলেই ভালো হতো।
  4. Oliur Rahman Miraz Oliur Rahman Miraz Author says:
    ট্রান্সলেটেড পোস্ট পড়া সত্যিই বিরক্তিকর । আপনি চাইলে পুরো পোস্ট ইংরেজিতে করতে পারতেন এই রুলস ট্রিকবিডিতে আছে। ❤

Leave a Reply