Be a Trainer! Share your knowledge.
Home » Hadith & Quran » এবার প্রথম পর্বের বিশ্ব ইজতেমা ১২,১৩ ও ১৪ জানুয়ারি আর দ্বিতীয় পর্বের ইজতেমা ১৯,২০ ও ২১ জানুয়ারি ইনশা-আল্লহ..

2 months ago (Jan 10, 2018)

এবার প্রথম পর্বের বিশ্ব ইজতেমা ১২,১৩ ও ১৪ জানুয়ারি আর দ্বিতীয় পর্বের ইজতেমা ১৯,২০ ও ২১ জানুয়ারি ইনশা-আল্লহ..

Category: Hadith & Quran Tags: , , , , , , , , , , , , , , , by

আসসালামু আলাইকুম….

ভাই, “ঈমান ইসলামের মূল স্তম্ভ।”

আপনি কি ভাবছেন, ” নামাজ পড়লেইতো হলো, হজ্জ করলেইতো হলো etc etc “. কিন্তু বিষয়টা অতো সুজা নাহ… যদি ইমান না থাকে তবে এ সব আমলের কোনই মূল্য নাই। ঠিক অনেক গুলা শূন্যের পূর্বে একটা এক না থাকলে শুন্য গুলা যেমন মুল্যহীন।

টাকা আয় করতে হলে যেমন পরিশ্রম করা লাগে।
আর এই ঈমান অর্জন করার জন্যও ঠিক পরিশ্রম করা লাগে !!!

যেনো বেশি থেকে বেশি মানুষ আল্লাহর রাস্তায় বের হতে পারে, যেনো সারা বিশ্বের মানুষ ঈমানদার তথা হেদায়েত পেয়ে যায় এ উদ্দেশ্যেই এইবার বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্বো ১২-১৪ জানুয়ারি আর দ্বিতীয় পর্বোর ইজতেমা ১৯-২১ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত হবে ইনশাআল্লাহ ।

♥ ইজতেমার প্রতি পর্বের শেষ দিন আখেরি মোনাজাত অনুষ্ঠিত হবে ইনশা-আল্লহ ।গত বৃহস্পতিবার ইজতেমার মাঠে দেশ-বিদেশের মুরব্বিদের পরামর্শ বৈঠকে (মাশওয়ারা) এ তারিখ চূড়ান্ত করা হয়।

♥ আলহামদুলিল্লাহ আল্লাহর রহমতে এদেশে বিশ্ব ইজতেমা ১৯৬৭ সাল থেকে নিয়মিত অনুষ্ঠিত হয়ে আসছে।

মানুষের দুর্ভোগ সংকট কাটাতে ২০১১ সাল থেকে বিশ্ব ইজতেমা দুই পর্বে ভাগ করে আয়োজন করা হচ্ছে।

চলুন ইজতেমায় অংশগ্রহন করি আর আল্লাহর রাস্তায় বের হই।

তো আলহামদুলিল্লাহ এইবার আমার জেলার (ময়মনসিংহ, শেরপুর-এর) ইজতেমা টঙ্গীতে।

আজ রাতেই রওনা দিবো ইজতেমার উদ্দেশ্যে ইনশা-আল্লহ…!

হাজার টাকা খরচ করে বিদেশ থেকে মানুষ এদেশের ইজতেমায় অংশ নিচ্ছেন। ঘরের কাছেই ইজতেমা ; আমিতো যাচ্ছি, আপনি যাচ্ছেনতো ???
” আল্লাহ হাফিজ ।”

Report

About Post: 41

মুফতি

বিজ্ঞানকে আলাদাভাবে চিন্তা না করি। বিজ্ঞান আমাদের আল্লাহরই সৃষ্টি। আর আল্লাহকে চিনার জন্য বিজ্ঞানও একটি Way....?

25 responses to “এবার প্রথম পর্বের বিশ্ব ইজতেমা ১২,১৩ ও ১৪ জানুয়ারি আর দ্বিতীয় পর্বের ইজতেমা ১৯,২০ ও ২১ জানুয়ারি ইনশা-আল্লহ..”

  1. Mahmudul Hasan Mahmudul Hasan (Contributor) says:

    আল্লাহ্ কবুল করুক।

  2. মিঠু মিঠু (Contributor) says:

    ইজতেমা বিদায়াত। কারন কুরান এবং হাদিসে এই ধরনের কোন আমল পাওয়া যায় না।

  3. Sohag Srz Sohag Srz (Author) says:

    Amar Abbu Osusto Tai Jeta Parlam nah 🙁

  4. Md Khalid Md Khalid (Author) says:

    আসসালামু আলাইকুম, মুফতি ভাই এভাবে বলবেন না, এটা দাওয়াত নয় প্লিজ আলেম দের জিজ্ঞাসা করুন বা যারা আসলেই মুফতি তাঁদের জিজ্ঞাসা করুন দাওয়াত কি। রাসুল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম যা বলেছেন আপনি তা ভুল বলতে পারেন কিভাবে? নাউযুবিল্লাহ। তাকে এক সাহাবী প্রশ্ন করলেন – কি করলে জান্নাতে যাবো ও আপনার পাশে থাকবো? তিনি বলেছেন নামায ও ফরয ইবাদাত গুলো যথেষ্ঠ, সাথে হারাম থেকে বেঁচে থাকা। , কোথাও বলেছেন কালিমা পড়া যথেষ্ঠ, আপনি বলছেন ইজতেমায় যেতে হবে? ভাই দাওয়াতি কাজের জন্য সুবিধার জন্য উপকরন যোগ করা যায়, যেমন – মাইক, মোবাইল, কিন্তু ধর্মীয় কাজ যোগ করার লাইন নিয়া। উপকরন গুলো বিদআত নয় আবার ইবাদত ও নয়। ডাক্তে হবে আল্লাহর দিকে, দলের দিকে নয়। আপনি যাচ্ছে ন ভাল কথা – গিয়ে যা শিখলেন তা প্রচার করুন। কখনো এটা থিক হতে পারেনা যে কোম্পানীর ঔষধ কিনলে তাকে কোম্পানীতে যোগ দিতে হবে, যা ইন্সুরেন্স বা এম এল এম এর মতো।

  5. Md Khalid Md Khalid (Author) says:

    আসসালামু আলাইকুম, মুফতি ভাই এভাবে বলবেন না, এটা দাওয়াত নয় প্লিজ আলেম দের জিজ্ঞাসা করুন বা যারা আসলেই মুফতি তাঁদের জিজ্ঞাসা করুন দাওয়াত কি। রাসুল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম যা বলেছেন আপনি তা ভুল বলতে পারেন কিভাবে? নাউযুবিল্লাহ।

  6. Md Khalid Md Khalid (Author) says:

    আসসালামু আলাইকুম, মুফতি ভাই এভাবে বলবেন না, এটা দাওয়াত নয় প্লিজ আলেম দের জিজ্ঞাসা করুন বা যারা আসলেই মুফতি তাঁদের জিজ্ঞাসা করুন দাওয়াত কি।

  7. Md Khalid Md Khalid (Author) says:

    সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম কে এক সাহাবী প্রশ্ন করলেন – কি করলে জান্নাতে যাবো ও আপনার পাশে থাকবো? তিনি বলেছেন নামায ও ফরয ইবাদাত গুলো যথেষ্ঠ, সাথে হারাম থেকে বেঁচে থাকা। , কোথাও বলেছেন কালিমা পড়া যথেষ্ঠ,

    • মুফতি মুফতি (Author) says:

      kalima ki tuta pakhir buli ????
      Kalima mene newa mane ki jenento naki ????
      Kalima mene newa mane take sooooob kj Allahr marji moto kj korte hobe .

      • Md Khalid Md Khalid (Author) says:

        হা ভাই, যা আল্লাহর সন্তুষ্টি আনে, তা বলা উচিত নয়, তা করা উচিত নয়। দেখুন
        ‘‘নিশ্চয়ই আমার নামায, আমার কুরবানী, আমার জীবন ও আমার মরণ সারা জাহানের রব আল্লাহর জন্য’’-সূরা আনআম : ১৬২

        আর আল্লাহর মর্জি তাই যা রাসুল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম কএছেন, করতে বলেছেন, আমড়া তা মানার সুবিধার্থে উপকরন নিতে পারি, এই উপকরন বিদআত ও নয়, ইবাদত ও নয়। অর্থাৎ এই উপকরন নিলে পাপ নয়, না নিলেও পাপ নয়। যারা আজ রাজনীতি করে তারা আপনার মতই বলে থাকে “রাজনীতি না করলে বেহেশ্ত পাবানা” যা মিথ্যাচার ছাড়া কিছুই নয়।

        • Md Khalid Md Khalid (Author) says:

          ১। রসূল তোমাদেরকে যা দেন, তা গ্রহণ কর এবং যা নিষেধ করেন, তা থেকে বিরত থাক এবং আল্লাহকে ভয় কর। [ সুরাহ হাশর ঃ ৭]
          ২। (হে রাসুল!) আপনি বলুন, যদি তোমরা প্রকৃতই আল্লাহকে ভালোবাসতে চাও, তবে আমার অনুসরণ কর, তবেই আল্লাহ তোমাদের ভালোবাসবেন এবং তোমাদের গোনাহ ক্ষমা করবেন। আল্লাহ পরম ক্ষমাশীল দয়ালু। ( ইমরান : ৩১)

  8. মিঠু মিঠু (Contributor) says:

    আমাদের নবী যে আমালটা যে ভাবে করছে আমাদেরও সেই আমাল ঠিক সেই ভাবেই করতে হবে আমালকে মডিফাই করা যাবে না। মডিফাই যা করার নবীজি করে গেসেন। সেই হিসাব করলে ইজতেমা স্টাইলের কোন আমল হাদিস অ্যান্ড কুরানে নেই। সো এটা স্পষ্টই বিদায়াত।

    • মুফতি মুফতি (Author) says:

      অল্প বিদ্যা ভয়ংকরী। আপনার মতে “এইখানে কমেন্ট করাও আপনার জন্য বিদয়াত।” আর আমার মতে “এইটা নেকির কাজ। ”
      (অর্থবুঝে কুর-আর পড়লে ভালো হয়।)
      জাজাকাল্লাহ

    • Md Khalid Md Khalid (Author) says:

      আপনার রিপ্লাই দিতে গিয়ে নিচে দিয়ে ফেলেছি, দেখে নিবেন প্লিজ ।

    • Tanha Akter Misu Tanha Akter Misu (Contributor) says:

      পিস টিভি দিয়ে রাসুল সা. দাওয়াত দিয়েছেন??
      মতি মাদানী যে সৌদি থেকে ভিডিওর মাধ্যমে বাংলাদেশ বিভ্রান্তি সৃষ্টি করছ তাকি কোন নবি করেছে??
      এই দালাল গুলো মডিফাই করছে কেন??

  9. Md Khalid Md Khalid (Author) says:

    আপনি ঠিক বলেছেন, আরোও জানতে “রাহে বেলায়াত, এহইয়ায়ুস সুনান” পড়ুন, কম দাম, আলেম দের বৈ, অনলাইনেও সার্স করলে পাবেনা। আর হা , ইজতেমা, মসজিদে টাইলস, মাইক, সঙ্গঠন, ভোট, গাশত , মুরিদি, এগুলো উপকরন, সেই দ্বীন প্রচার ও ইবাদাত পালনের উপকরন। কিন্তু এরা সবাই ই এগুলোকে ইবাদাত মনে করে, ও না করাকে পাপ মনে করে । অথচ
    সাওয়াব বা পাপ হতে হলে তাই হাদীসে থাকতে হয়। এগুলো হাদীসে নাই বলে বিদআত ও নয়। আবার সাওয়াবের কাআজ ও নয়। তবে এগুলো করতে গিয়ে আবার কেউ যদি পাপে লিপ্ত হয় [যেমন, গীবত হিংসা তর্ক, ঘর বাড়ি, রাস্তা বা সরকারী সম্পদ নস্ট ইত্যাদি তা পাপ ই, আবার সেই পাপ কে আগেরমত সাওয়াব মনে করলে তাহলে মহাপাপ হয়ে গেলো।

    ———— আলেমে দ্বীন, আব্দুল্লাহ জাহাঙ্গীর, আসসুন্নাহ ট্রাস্ট।

  10. মিঠু মিঠু (Contributor) says:

    ভাই দাওয়াত পোঁছানোর জন্য আমার বিভিন্ন পন্থা অবলম্বন করতে পারি। যেমন ট্রিকবিডি, পেপার, বিভিন্ন মিডিয়া ইতাদি। সেটা বিদায়াত নয়। বাট দাওয়াতের স্টাইল টা হতে হবে সেম টু সেম নবীজির স্টাইল এ। আমাল এত মদ্ধে কোন পরিবর্তন আনা সেটাই হচ্ছে বিদায়াত।

    • মুফতি মুফতি (Author) says:

      আপনার দাওয়াত দেয়ার style-তো রসূল (স) এর সাথে মিলতেছেনা !

      যাই হোক, আমরা ইজতেমার আসল বিষয়বস্তুকে ভুলে গিয়ে নগন্য বিষয়কে বড়ো করে দেখতেছি।

    • মুফতি মুফতি (Author) says:

      আপনার দাওয়াত দেয়ার style-তো রসূল (স) এর সাথে মিলতেছেনা !

      যাই হোক, আমরা ইজতেমার আসল বিষয়বস্তুকে ভুলে গিয়ে নগন্য বিষয়কে বড়ো করে দেখতেছি।
      *

      • মিঠু মিঠু (Contributor) says:

        আমার কোন দাওয়াত দেওয়ার স্টাইল টা রাসুল এর সাথে মিলতেছেনা ভাই একটু বুঝিয়ে বলবেন কি? আর ভাই বিদায়াত এর মদ্ধে যতই ভালো থাকুক আর যতই কল্যান সেই ভালো আর কল্যান মানা যাবে না। এটা রাসুল থেকেই নিষিদ্ধ করা। কারন রাসুল আমাদের যেই ভালো দিয়ে গেছে সেটাই আমাদের মানতে হবে। নিজেরা পন্ডিতি করে বেশী করা যাবে না।

Leave a Reply