এক ঈগল একবার বনমুরগীর বাসায় ডিম পেড়ে
গেল।। বনমুরগী ডিমে তাপ দিল।। একদিন ডিম
ফুটে বাচ্চা বের হলো।। ঈগলের বাচ্চাটি বন
মুরগীর বাচ্চা হিসেবে পালিত হতে লাগল।। তার
স্বভাবও হয়ে উঠল মুরগীর মত।। বনমুরগীর
মত ডাকে।। উড়তেও পারে না।।
একদিন সে দেখল আকাশে ডানা মেলে উড়ে
যাচ্ছে ঈগল।। সে বিস্ময়ের সাথে প্রশ্ন করল,
এটা কি?? বনমুরগীরা উত্তর দিল, ওটা ঈগল।। অসাধারন

পাখি।। তুমি ওর মত দেখতে হলেও তুমি
বনমুরগী হয়ে গেছো।। ওর মত কখনো
হতে পারবে না।। ঈগলের বাচ্চা এই কথা বিশ্বাস
করে কোন দিন উড়ার চেষ্টাও করল না।।
এভাবেই সে কাটিয়ে দিল তার পুরোটা জীবন।।
একসময় তার মৃত্যু হল।। সে জানতেও পারল না তার
জন্ম হয়েছিলো আকাশের উঁচুতে উড়ার জন্য,
আকাশকে শাসন করার জন্য!!
শিক্ষণীয়ঃ অধিকাংশ মানুষই এরকম।। অসীম ক্ষমতা
নিয়ে জন্মায় কিন্তু বেশীরভাগই তা কাজে
লাগাতে পারে না।। আসুন আমরা অধিকাংশ না হয়ে
অন্যতম হতে চেষ্টা করি।। আমাদের দশা যেন
এরকম ঈগলের মত না হয়…

ভাল লাগলে আমার সাইটে ভিজিট করবেন

3 thoughts on "[শিক্ষনীয় গল্প] এক ঈগলের বাচ্চা"

  1. JrJisan JrJisan Contributor says:
    nice…


Leave a Reply