আসসালামু আলাইকুম। কেমন আছেন আপনারা সবাই। আশা করি সবাই ভাল আছেন আমিও ভাল আছি। চলুন আর্টিকেল শুরু করা যাক।

ব্যাকলিংক কি

ব্যাকলিংক কি ওয়েবমাস্টারদের প্রায় সকলেই এটি  স  সম্পর্কে জেনে থাকি। তো যারা জানেন না তাদের জন্য আমি আবারও বলতেছি ব্যাকলিংক হলো আপনার ওয়েবসাইটের লিংক অন্য কোন ওয়েবসাইটের সাথে জড়িয়ে দেওয়া। এটিকে আমরা সহজ ভাষায় ব্যাকলিংক বলে থাকি। ধরুন আপনার একটি ওয়েবসাইট রয়েছে এবং আপনার বন্ধুর আরো একটি ওয়েবসাইট রয়েছে এখন আপনার ওয়েব সাইটের লিংকটি আপনার বন্ধুর ওয়েবসাইটের সাথে সংযুক্ত করেলেন। যে কোন অংশে বা কনটেন্ট এর মাঝে তাহলেই আপনি আপনার বন্ধুর ওয়েবসাইট থেকে ব্যাকলিংক পেলেন। ব্যাকলিংক কি এবং কিভাবে আপনারা ব্যাকলিংক নিবেন তার একটি ছোট্ট ধারণা আপনাদের মাঝে তুলে ধরলাম এখন আমরা আরো কিছু গুরুত্বপূর্ণ বিষয় আপনাদের মাঝে তুলে ধরবো  যা আপনাদের অবশ্যই সাহায্য করবে ব্যাকলিংক সম্পর্কে।

  ব্যাকলিংক কত প্রকার ও কি কি

ইতিমধ্যে যারা ব্যাক লিংক সম্পর্কে জানেন না তাদের মনে হয়তো প্রশ্ন আসতে পারে ব্যাকলিংক কত প্রকার ও কি কি আমরা নিচে ব্যাংকের প্রকারভেদ তুলে ধরলাম ব্যাকলিংক মূলত দুই প্রকার:

  • নো ফলো
  • ডু  ফলো
  •  

নো ফলো ব্যাকলিংলক 

এর আগেই আমরা বলে দিয়েছি ব্যাকলিংক দুই প্রকার তো এখন আমরা ব্যাকলিংক এর একটি প্রকার নিয়ে আলোচনা করব। নো ফলো ব্যাক লিংক সম্পর্কে সহজ ভাষায় বলতে গেলে আপনি যেকোনো একটি ওয়েবসাইট থেকে ব্যাকলিংক নিলেন কিন্তু সেখানে শুধু ভিজিটর আপনার ব্যাকলিংক এ ক্লিক করে আপনার ওয়েবসাইটে ভিজিট করতে পারবে কিন্তু সার্চ ইঞ্জিন সেই লিংকটি ভিজিট করতে পারবে না তো এটি হলো নো ফলো ব্যাক লিংক।

ডু ফলো ব্যাকলিংক

ব্যাকলিংক নেওয়ার উপায় এর আগে আমরা আলোচনা করলাম নো ফলো ব্যাক লিঙ্ক নিয়ে এখন আমার কথা বলব ডু ফলো ব্যাক লিংক নিয়ে। সহজ ভাষায় ডুফলো ব্যাকলিংক সম্পর্কে যদি আপনাদের মাঝে আলোচনা করি তাহলে বলতে হবে যে ব্যাকলিংক গুলোতে নো  ফলো ব্যাকলিংক থাকে না সেইসব ব্যাকলিংকে ডুফলো ব্যাকলিংক বলা হয়। এই ডু ফলো ব্যাক লিংক সার্চ ইঞ্জিন এবং ভিজিটর উভয় ভিজিট করতে পারে। তা আপনি যদি কখনো ব্যাকলিংক নিয়ে থাকেন তাহলে অবশ্যই আমি সাজেস্ট করবো ডুফলো ব্যাকলিংক নিতে কেননা এখানে আপনারা সার্চ ইঞ্জিন থেকেও ভালো সুবিধা পাবেন। ডুফলো ব্যাকলিংক এর জন্য আশা করি সফল এবং নোফলো ব্যাকলিংক সম্পর্কে আপনারা যথেষ্ট ধারণা পেয়েছেন!

যেভাবে ফ্রি ব্যাকলিংক নেবেন।

আরো পড়ুনঃ এসইও(SEO) শিখে যেসকল উপায়ে আয় বা ক্যারিয়ার গড়া যায়!

এতক্ষণে হয়তো আপনারা ব্যাকলিংক এর গুরুত্ব বুঝে গেছেন এখন আমি আলোচনা করব কিভাবে আপনারা খুব সহজেই ব্যাকলিংক নিবেন আপনার ওয়েবসাইটের জন্য আমরা সবাই চাই ব্যাকলিংক নিতে কিন্তু ব্যাকলিংক নেওয়ার আগে আপনাকে কিছু বিষয়ে লক্ষ্য রাখতে হবে আপনাকে প্রথমে আপনার ওয়েবসাইটের নিস অনুযায়ী ওয়েবসাইট খুঁজে বের করতে হবে কেননা রিলেটেড ওয়েবসাইট না হলে আপনারা যথেষ্ট ভিজিটর পাবেন না এরপর আপনাকে বিশ্বস্ত এবং বড় একটি ওয়েবসাইট নির্ধারণ করতে হবে কেননা সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশনে ভালো ওয়েবসাইট থেকে ব্যাকলিংক নিলে সেটি আলাদা প্রাধান্য দেওয়া হয় এজন্য আপনাকে ভালো ওয়েবসাইট খুঁজে বের করতে হবে। তারপর আপনারা নিচে দেওয়া কয়েকটি নিয়ম খাটিয়ে ব্যাকলিংক নিতে পারবেন নিচে আলোচনা করা হলো যেভাবে আপনারা ব্যাকলিংক নিবেন!!

১. গেস্ট ব্লগিং নতুন ব্লগারদের জন্য খুবই একটি জনপ্রিয় মাধ্যম হল গেস্ট ব্লগিং। একজন নতুন ব্লগার গেস্ট ব্লগিংয়ের মাধ্যমে খুব সহজেই তার ওয়েবসাইটের জন্য ব্যাক লিঙ্ক নিতে পারে। যারা নতুন ব্লগার রয়েছে তাদের জন্য আমি সাজেস্ট করবো গেস্ট ব্লগিং করা। গেস্ট ব্লগিং সম্পর্কে যারা জানেন না তাদের একটু বলে নেই যে গেস্ট ব্লগিং হলো আপনি অন্যের সাইটের কনটেন্ট লিখে দিয়ে সেখান থেকে ব্যাকলিংক নিতে পারার উপায়ই হলো গেস্ট ব্লগিং। গেস্ট ব্লগিং করার আগে আপনার যে ওয়েবসাইট থেকে ব্যাকলিংক নিতে চান সেই ওয়েবসাইটটিকে ভালোভাবে লক্ষ্য করুন এবং সেই ওয়েবসাইটে স্কোর ভালোভাবে যাচাই করুন। তাহলেই আপনারা গেস্ট ব্লগিং থেকে ভালো ফলাফল পেতে পারেন।

২. প্রশ্নের উত্তর দেওয়ার মাধ্যমে হয়তো আপনারা অনেকেই লক্ষ্য করবেন বর্তমানে ইন্টারনেট জগতে অনেকগুলো প্রশ্ন উত্তর ওয়েবসাইট রয়েছে। যেখানে নানা রকম প্রশ্ন প্রতিনিয়ত করা হয় তা আপনারা চাইলে সেখান থেকে ভালো পরিমাণে ব্যাকলিংক নিতে পারবেন। ধরুন একটি বিষয়ে একটি প্রশ্ন-উত্তর ওয়েবসাইটে প্রশ্ন করেছি সেখানে আপনি আপনার সাধ্যমত সেই প্রশ্নটি যথাযথ উত্তর দিয়ে। নিচে আপনারা রেফারেন্স হিসেবে আপনার ওয়েবসাইটের লিংক যুক্ত করে উপরে বলে দিলেন যে আরও তথ্যের জন্য নিচের ওয়েব সাইটটি ভিজিট করতে পারেন। তাহলে কিন্তু সেখান থেকে আপনারা ভালো পরিমাণে ভিজিটর পাবেন এবং আপনার ব্যাকলিংক খুবই কার্যকর হবে। বর্তমানে এটি একটি খুবই জনপ্রিয় মাধ্যম ব্যাকলিংক নেওয়ার জন্য!!

তো উপরের দুটি নিয়ম দিয়ে আপনারা চাইলে ফ্রীতেই ব্যাকলিংক নিতে পারেন।

যেকোনো ট্রিক এর জন্য ভিসিট করুন BoiBik.com

তো আজকে পর্যন্ত ভালো থাকুন সুস্থ থাকুন আমাদের এই ওয়েবসাইটটির সঙ্গেই থাকুন এবং আপনারা জানেন প্রতিনিয়ত ট্রিগবিটিতে নানারকম আর্টিকেল পোস্ট করা হয় আপনাদের জানার জন্য। অনুরোধ করবো ট্রিকবিডি সাথেই থাকুন আল্লাহ হাফেজ।

** Ignore my mistakes **

2 thoughts on "ব্যাকলিংক কি? ফ্রিতেই ব্যাকলিংক নেওয়ার উপায় জেনে নিন!"

  1. Shekh Al-Amin Author says:
    দারুণ পোস্ট
  2. Rahul Islam Contributor says:
    Vai Website Google News E Submit Kore Kitvabe?
    A Bisoy A Ekta Post Plz

Leave a Reply