আসসালামু আলাইকুম,
বর্তমানে অনেক সাধারণ মানুষের একটি ওয়েবসাইট থাকে এবং তারা এই ওয়েবসাইটে তাদের মূল্যবান কনটেন্ট দিয়ে থাকেন। আবার অনেকেই তাদের ওয়েবসাইট থেকে প্রতিমাসে বিপুল পরিমাণ টাকা ইনকাম করে। কিন্তু অনেক হ্যাকাররা রয়েছে যারা অন্যের ক্ষতি চায় এবং আপনার ওয়েবসাইট কে খুব সহজেই হ্যাক করতে পারে যেন তাদের কাছে এটা কোন বিষয়ই না।  তবে বিষয়টা আমাদের কাছে খুবই কঠিন হয়ে দাঁড়ায় যখন আমাদের ওয়েবসাইটে হ্যাক হয়। একটি ওয়েবসাইট আমরা কষ্ট করে টাকা ইনভেস্ট করে তৈরি করি তার আবার ডেভেলপমেন্ট ডিজাইনের আলাদা খরচ অথবা নিজের পরিশ্রম এবং এটা থেকে প্রতিমাসে অনেকেই টাকা আরনিং করেন।  এই হ্যাকিংয়ের জন্য ইনকাম কম হয় অথবা কোন কোন ক্ষেত্রে ওয়েবসাইটটি আর ফেরত পান না।  তখন সাধের ওয়েবসাইটটিকে ভুলে যাওয়া ছাড়া আর কিছুই করার থাকেনা। আজকে এমনই একটি ঘটনার উপরে কথা বলবো যার শিকার হয়েছে আমি নিজেই গত পরশুদিন তো চলুন শুরু করা যাক।

Problem I Have faced……

তো আমার ওয়েবসাইটটি হলো- developsbd
এই ওয়েবসাইট রিসেন্টলি নতুন ভিজিটর পাওয়া শুরু করেছিল।  এর আগে ওয়েবসাইটে কোন ভিজিটরে ছিল না বলা যায়। যখন নতুন নতুন ভিজিটর আসতো এক দিক থেকে খুশি ছিলাম। তখনই একদিন ওয়েবসাইটে ঢুকে দেখি ওয়েবসাইটের অন্য ডোমেইন এ রি ডাইরেক্ট হচ্ছে। অর্থাৎ আমার ওয়েবসাইটে ঢুকলে এটা অন্য ওয়েবসাইটে চলে যাচ্ছে। তখন আমি প্রাথমিকভাবে ভেবেছিলাম যে এটা হোস্টিং প্রোভাইডারের সমস্যা অথবা ডোমেইন প্রবলেম। তো আমি হোস্টিং এবং ডোমেইন প্রোভাইডারদের সাথে যোগাযোগ করি এবং সেখানে সাপোর্ট টিকেট ওপেন করি। যেহেতু বাংলাদেশের হোস্টিং কোম্পানিগুলো খুব একটি উন্নত নয় তাই এখানে তাদের সাপোর্ট টিমের রেসপন্স ছিল অনেক লেট। আমি বাধ্য হয়ে অন্য একটি হোস্টিং ক্রয় করি এবং সাইটটি সেখানে মাইগ্রেট করি।  সমস্যা হল সাইট মাইগ্রেশন এর পরেও একই সমস্যা দেখা দেয় তখন আমি বুঝতে পারলাম কিংবা হোস্টিংয়ের প্রবলেম নয়। তো আমি বুঝতে চেষ্টা করলাম সমস্যাটা কি কেন আমার ওয়েবসাইটে ঢুকলে সেটা অন্য ডোমেইন এ ডাইরেক্ট করছে।

Understanding the problem

প্রবলেমটা খুবই সহজ ছিল তবুও বুঝতে সময় লাগছিল।  এটা প্রাথমিকভাবে মনে হয়েছিল ডোমেইনের মেয়াদ শেষ অথবা হোস্টিং এর মেয়াাদ শেষ।  তো আমি প্রথমেই চেক করি এবং হোস্টিং এর মেয়াদ রয়েছে কিনা। তো আমি দেখলে আমার ডোমেইন এবং হোস্টিং উভয়েরই মেয়াদ রয়েছে।  তখন ভাবলাম আমার হোস্টিং প্রোভাইডারদের সমস্যা কিন্তু পরবর্তীতে যখন বুঝতে পারলাম এটা ওয়েস্টিং এর কোন প্রবলেম নয় তখন ভাবার চেষ্টা করছিলাম সমস্যাটা কোথায় এবং পরিশেষে বুঝতে পারলাম ওয়েবসাইটটি হ্যাক হয়েছে।

Which type of hack

আমরা সাধারণত হ্যাকিং বলতেই বুঝি ওয়েবসাইটটি পুরোপুরি হাতিয়ে নেওয়া। কিন্তু বিষয়টা আসলে এমন না। যারা মোটামুটি পিএইচপি স্ক্রিপ্ট নিয়ে কাজ করি অথবা ওয়েব ডেভেলপমেন্টের সাথে মোটামুটি সম্পর্কযুক্ত তারা হয়তো বা বুঝি যে সি প্যানেল থেকে PHP my admin  সেটিং এ আপনার ওয়েবসাইটের লিংক

দেওয়া থাকে এবং আপনি যখন আপনার ওয়েবসাইটে প্রবেশ করেন তখন প্রথমে সার্ভার টি চেক করে যে লিংকটি ভিজিটর অ্যাক্সেস করতে চাচ্ছে সেটা সার্ভারের PHP My admin এর লিংক এর সাথে মেলে কিনা।
পিএইচপি মাই এডমিনে যে লিংকটা দেওয়া থাকবে ওয়েবসাইট ওপেন করলে ওই লিংকেই প্রবেশ করবে.

এটা আমি প্রাথমিকভাবে জানতাম না।  য এটা সি প্যানেলের এ কেউ একজন  আমার ওয়েবসাইটে মাই এসকিউএল ইঞ্জেক্ট (mysql injecting)  করে php my admin  থেকে ওয়েবসাইটের ইউআরএলটি চেঞ্জ করে অন্য একটি ওয়েবসাইটের লিংক দিয়ে দেয় এবং যখন আমি আমার ওয়েবসাইটে প্রবেশ করেছিলাম তখন সেটা ওই ওয়েবসাইটে এই ডাইরেক্ট হচ্ছিল।
( আমি mysql injecting  বিষয়ে জানি না যতটুকু যতটুকু বুঝলাম ততটুকু বললাম)

How to fix

এখন প্রশ্ন আসে কিভাবে সমস্যাটি সমাধান করব তো চলুন জেনে নেওয়া যাক কিভাবে সমস্যাটি সমাধান করব প্রথম ক্ষেত্রে আমার তো জানা ছিল না সমস্যাটা কোথায় তাই আমার এত সময় লেগেছিল সমস্যা সমাধান করতে আসলে সমস্যাটা সমাধান করতে সময় মাত্র দুই থেকে তিন মিনিট লাগবে যেহেতু আমি বুঝতেই পারিনি সমস্যাটা কোথায় তাই আমার এত বেশি সময় লেগেছিল তো সমস্যাটা সমাধান করার জন্য সিম্পল ভাবে যেভাবে আমি দেখিয়েছি সি প্যানেল থেকে পিএইচপি মাই এডমিন প্যানেলে ঢুকবেন এবং তারপর ক্লিক করবেন সেখানে আপনি দেখতে পাবেন সাইট ইউ আর এল সেখানে আপনার ওয়েবসাইটের লিংক থাকার কথা কিন্তু যদি না থাকে তাহলে বুঝবেন আপনার ওয়েবসাইটি কেউ হ্যাক করেছে এবং আপনার ডোমেইনের জায়গায় অন্য স্প্যাম ডোমেন বসিয়ে রেখেছে সিম্পল ভাবে ওটার এডিটে ক্লিক করুন এবং স্পাম ডোমেনের লিংকটি কেটে দিয়ে আপনার ডোমেইনের লিংকটি দিন। এবং আপনার সমস্যার সমাধান হয়ে গেল।

 

তো আমি আজকে আপনাদের সাথে শেয়ার করলাম আমার ওয়েবসাইট হ্যাক  হওয়ায় আমার অভিজ্ঞতা । যদি আর্টিকেল টি ভালো লেগে থাকে  আমার ওয়েবসাইট টি ভিজিট করবেন এরকম ওয়েব ডেভেলপমেন্ট, মোবাইল ফোন আপডেটস এবং টেক নিউজ এর জন্য ।

Love more –

Top 3 most used, famous and premium video editor for android,

Ways to rank blogs or articles on Google

wordpress redirect hack malware(solved) 2022 strategy..

9 thoughts on "ওয়েবসাইট হ্যাকিং এর শিকার হলাম, কিভাবে Fix করলাম, কি ধরনের হ্যাকিং?আপনি কিভাবে বাচবেন এর থেকে? বিস্তারিত সব.. [WordPress Redirect Hack Malware]"

    1. TahmiedHossain Author Post Creator says:
      thanks,
      keep supporting
  1. emanur Contributor says:
    Nice post
    1. TahmiedHossain Author Post Creator says:
      thanks…
      keep supporting
      visit my website developsbd
  2. SagorSrkian Author says:
    Very Nice Post ❤️
    1. Tahmied Hossain Author Post Creator says:
      Thanks
  3. V3L0X Contributor says:
    Nc post💖

Leave a Reply