আসসালামুয়ালাইকুম

আজকে দেখাবো WiNDOWS ১0 এর একটা লাইট ভার্সন । এই আর্টিকেল-টি লেখার মূল উদ্দেশ্য যাদের কম্পিউটারের পার্ফরমেন্স অনেক খারাপ; কোনো কাজ করতে গেলেই ল্যাগ দেয়-হ্যাং করে তাদের জন্য, এই Windows ১০ এর লাইট ভার্সন টা। আর এটা আন-অফিশিয়াল হলেও শতভাগ নিরাপদ।

আজকের এই উইন্ডোজটা মূলত তাদের জন্য যাদের অন্তত কম্পিউটারে ২ জিবি র‍্যাম এবং অনেক পুরোনো কম্পিউটার, নিচে পুরো বিল্ডের স্পেসিফিকেশন দেয়া হলোঃ

মূল তথ্য (Overview):

WiNDOWS অলরেডি পার্মানেন্টলি একটিভ করা আছে

Dot Net 3.5 এনাবল করা আছে

7zip অলরেডি ইন্সটল করা আছে

‘ডার্ক মোড’ বাই ডিফল্ট অন করা আছে

ছবি দেখার জন্য Default ফটো ভিউয়ার হিসেবে আছে ‘Picasa photo viewer’; যেটা ডিফল্ট ভিউয়ার থেকে কয়েক গুন দ্রুত ছবি ওপেন করে

ভিডিও ও অডিও প্লেয়ার হিসেবে দেয়া আছে ‘VLC Media Player’ এর ইন্সটলেশন ফাইল

Only clean installation with this build; মানে আপগ্রড হবেনা; পুরোনো উইন্ডোজ ডিলেট করে এটা ইন্সটল করতে হবে

Microsoft account Removed

Microsoft Store Removed; মাইক্রোসফট স্টোরের যেকোনো সফটওয়ার যেকোনো ব্রাওজার দিয়েই নামানো যায়

Power Plan set to High Performance; একটা বেস্ট পাওয়ার প্ল্যান সেট করা আছে

আর হ্যা, এই বিল্ডটা ‘Windows 10 22H2’ এর ওপরে বেস করে বানানো ও আপডেটও অফ করা। আর WINDOWS 10 এর আর বড় কোনো আপডেট আসবেনা যা আসবে তা হলো সিকিউরিটি ও বাগ ফিক্স আপডেট যেগুলা এরকম লাইট বিল্ডে খুব দরকার নাই।

‘IgniteOS Box’ নামে একটা ফোল্ডার দেয়া আছে হোম স্ক্রিনেই যাতে করে ব্রাউজার (ক্রোম ও ফায়ারফক্স ইন্সটল করা যায়) ও ড্রাইভার আপডেট করার জন্য ‘Driver booster Pro’ ক্র্যাক দেয়া আছে।

অনেক সময় ‘Driver booster Pro’ কাজ নাও করতে পারে, তাহলে আপনার কম্পিউটারের ওয়েবসাইট থেকে ডিসপ্লে, অডিও ও অন্যান্য ড্রাইভার ডাউনলোড করে ইন্সটল করে নিবেন। আর হ্যা বেসিক ওয়াইফাই ও ইথারনেট ড্রাইভার দেয়া আছে ভিতরেই

আর সেটাপের সময় অনেক কিছুই অলরেডি সেটিংস সেট করে দেয়া আছে মানে ডিস্ক সিলেক্ট করে দিলেই ইন্সটলেশন শুরু হয়ে যাবে।

যা প্রয়োজন (Requirements):

২ জিবি র‍্যাম (যদি ৪ জিবি র‍্যাম থাকে তাহলে সবচেয়ে ভালো পার্ফমেন্স আসবে)

পুরোনো প্রসেসরও চলবে

ল্যাপটপ-ডেস্কটপ দুটোতেই চলবে

পেন ড্রাইভ বুট করার সময় অবশ্যই ‘Disable Bitlocker Drive Encryption’ এনাবল রাখবেন। (এমনি Bitlocker অফ আছে বাট বেটার সেফটির জন্য RUFUS দিয়ে বুট করলে এটা টিক দিয়ে দিবেন)

যা বাদ দেয়া হইছে (Removed Features):

Edge Browser, Smart Screen, BitLocker, Hyper-V (আংশিক), WSL2, One Drive, Smart Card, Windows Defender, Windows Mail, Backup and Restore, Telemetry (মানে নজরধারী), Diagnostics, Troubleshooting, Maps, Component Store, Speech, Voice Activation, Webview & Widgets, People, WiFi Sense (নরমাল ওয়াইফাই ঠিক আছে), Microsoft Account, Microsoft Store, Xbox, Snipping Tools, Internet Explorer Browser, Windows Update (ডিসেবল আছে, ফুল ডিসেবল কিনা পুরোপুরি সিউর না), এবং আরো অনেক কিছু বাদ দেয়া হইছে

যা ডিসেবল করা হইছে (Disabled Features):

Windows Ink Workspace, Error Reporting, Indexing, Windows Search, UAC, Ads, Telemetry, Hibernation, Power Throttling, Automatic Maintenance, Ads, Superfetch, Hibernation, Power Throttling, Game mode, Storage Sense(এটা চাইলে এনাবল করা যাবে) এবং আরো অনেক কিছু

যা এনাবল করা হইছে (Enabled Features):

Dot Net 3.5 (বিজয় বায়ান্ন-সহ বিভিন্ন সফটওয়ারে লাগে)

সকল প্রকার এনিমেশান এনাবল করা আছে

ভার্চুয়াল র‍্যাম এনাবল আছে, যাতে লো-এন্ড কম্পিউটারে বড় সফটওয়ার ক্র্যাশ না করে

কিছু কথাঃ

যারা এই লাইট অলরেডি চিনেন তাদের অনেকেই বলবেন এর স্টোরেজ সাইজ অনেক বেশি। আমারটার সাইজ বেশি কারন,

১/  আমি COMPACT OS ফিচার-টা এনাবল করি নাই, করলে সাইজ কমে বাট প্রসেসর ইউস অনেক বাড়ে

২/ আমি ভার্চুয়াল র‍্যাম এনাবল রাখছি, যাতে যাদের র‍্যাম কম তাদের যাতে সফটওয়ার ক্র্যাশ না করে; এটা কয়েক জিবি নিয়ে রাখে নেয়

আর এইটা দুনিয়ার শ্রেষ্ট লাইট বিল্ড না তাই আরো হয়তো ইম্প্রোভমেন্টের সুযোগ থাকলেও থাকতে পারে, বাট আমি যেহেতু এখনো শিখছি তাই আমার কাছে এইটাই বেস্ট ব্যালান্স বিল্ড মনে হইছে একদিকে পার্ফরমেন্স ঠিক রাখা আরেকদিকে মূল ফিচার-গুলা ঠিক রাখা।

পার্থক্য ভিডিওঃ

পার্থক্য ভিডিও (হাই কোয়ালিটি

WINDOWS ISO ফাইল ডাউওনলোড

আমার টেলিগ্রাম চ্যানেলঃ

t.me/raiyanmodspc

আজকের মতো এই পর্যন্তই

গাযওয়াতুল হিন্দের জন্য প্রস্তুতি নিন, ফিলিস্তিনিদের জন্য দোয়া করুন, বয়কট অব্যাহত রাখুন,

বাংলাদেশ চিরজীবি হোক

আল্লাহ হাফেয।

11 thoughts on "WiNDOWS 10 এর সুপার লাইট ভার্সন; IgniteOS। Introducing the IgniteOS, SuperLite Version of WiNDOWS 10"

  1. pkv games Poker88idr Contributor says:
    Atlas os be like 😁
    1. Mohtasin_Nur_Raiyan Author Post Creator says:
      আমিও প্রথমে AtlasOS ইউস করতাম। অনেকে বলে সিকিউরিটি রিস্ক থাকে এগুলাতে। তাছারাও কিছু ফিচার পার্টিয়ালি ব্রেক হয়ে আছে এতে (আরো ২ বছর আগে দেখছিলাম)
  2. KH Rasedul Contributor says:
    কে বলল আপনাকে ? আগের কথা বাদ দেন নতুন ভার্সন দেখেন ।
    1. Mohtasin_Nur_Raiyan Author Post Creator says:
      অনলাইনে ঘাটাঘাটি করেন, অনেক পাবেন
  3. Rifat+Ahmed Contributor says:
    টেরাবক্স ডাউনলোড স্পিড অনেক কম। অন্য কোনো লিংক থাকলে দিবেন প্লীজ।🙏
    1. Mohtasin_Nur_Raiyan Author Post Creator says:
      মিডিয়াফায়ার অনেক আইএসপি ব্লক করে রাখছে, গুগল ড্রাইভ ১০০% সেফ এসব মোডিফাইড জিনিস দেয়ার জন্য, কিত্তাম???
  4. Rony1996 Contributor says:
    Windows Security কি ডিসেবল করা?
    1. Mohtasin_Nur_Raiyan Author Post Creator says:
      সিকিউরিটিও ডিসেবল্ড
  5. Rony1996 Contributor says:
    এন্টিভাইরাস কি ডিজেবল করা
    1. Mohtasin_Nur_Raiyan Author Post Creator says:
      ডিফেন্ডার ডিসেবল করা
  6. Tarek Aziz Contributor says:
    সব ভালো লাগলো, তবে এই উইন্ডোজে অফিস ইনস্টল হয় না। ২০১০, ২০১৬, ২০০৭ ট্রাই করলাম হয় না।

Leave a Reply