আমাদের অনেকেরই কম্পিউটার বা ল্যাপটপ আছে। বর্তমানে কম্পিউটারে ভাইরাস আক্রান্ত হওয়ার পরিমাণ অনেক বেশি বৃদ্ধি পেয়েছে। আমরা আমাদের কম্পিউটারে অনেক জরুরী ফাইল রাখি। কিন্তু কম্পিউটার যদি ভাইরাস আক্রান্ত হয় সেক্ষেত্রে আমাদেরকে সেই ফাইলগুলো হারাতে হয়।

তাহলে চলুন আজকের পোস্ট এর মাধ্যমে আমরা কম্পিউটার ভাইরাস আক্রান্ত হওয়ার লক্ষণ গুলো জেনে নেই। যেগুলো আমাদের ভবিষ্যতে কাজে আসতে পারে।

• কম্পিউটার ভাইরাস আক্রান্ত হওয়ার লক্ষণ সমূহ:

১. কম্পিউটার স্লো কাজ করা: অনেক সময় দেখবেন আপনার কম্পিউটারে এসএসডি লাগানোর পরেও কম্পিউটার স্লো কাজ করছে। সেক্ষেত্রে অবশ্যই আপনার কম্পিউটারকে কোন একটি ভালো অ্যান্টিভাইরাস দিয়ে স্ক্যান করে নেবেন। কারণ কম্পিউটার ভাইরাস আক্রান্ত হওয়ার ফলে কম্পিউটার চালু হওয়ার সম্ভাবনা অনেক বেড়ে যায়।

২. দেরি করে ওপেন হওয়া: আপনার কম্পিউটার যদি স্বাভাবিক সময়ের থেকে দেরি করে চালু বা বন্ধ হয়, সে ক্ষেত্রে আপনার কম্পিউটারটি ওপেন হওয়ার পরে স্ক্যান করে নিন। কারণ কম্পিউটার ভাইরাস আক্রান্ত হওয়ার ফলে কম্পিউটার দেরিতে ওপেন বা বন্ধ হয়। তবে সবক্ষেত্রে নয়।

৩. নিজে নিজে রিস্টার্ট হওয়া: কম্পিউটার ভাইরাসে আক্রান্ত হলে অনেক সময় কম্পিউটার নিজে নিজেই রিস্টার্ট হয়। আপনার কম্পিউটার যদি এই ধরনের সমস্যা থাকে, তাহলে অবশ্যই আপনার কম্পিউটার স্ক্যান করে নেবেন। যদি ভাইরাস আক্রান্ত না হয়, সেক্ষেত্রে অবশ্যই আপনার কম্পিউটারের রেমের সমস্যা।

৪. প্রোগ্রাম বা সফটওয়্যার ওপেন হতে দেরি করা: কম্পিউটার যদি ভাইরাস আক্রান্ত হয় তাহলে কম্পিউটারের বিভিন্ন ফাইল, প্রোগ্রাম বা সফটওয়্যার গুলো ওপেন হতে দেরি হয়। আপনার কম্পিউটারে যদি এই ধরনের কোন সমস্যা থাকে তাহলে অবশ্যই কম্পিউটার একটি এন্টিভাইরাস স্ক্যান করে নিন।

৫. কম্পিউটার হ্যাং হওয়া: আপনার কম্পিউটারের সেটআপ যদি আপনার কাজ অনুযায়ী মানানসই হওয়ার পরেও কম্পিউটার হ্যাং করে, তাহলে আপনার কম্পিউটার ভাইরাস আক্রান্ত হতে পারে। তাই কম্পিউটারটি একবার এন্টিভাইরাস দিয়ে স্ক্যান করে নিতে পারেন।

৬. অচেনা প্রোগ্রাম বা সফটওয়্যার ইন্সটল: মাঝেমধ্যে আপনার কম্পিউটারে দেখবেন বিভিন্ন অচেনা সফটওয়্যার, ফাইল বা কোন প্রোগ্রাম ইনস্টল হয়ে যায়। যদি এই ধরনের কোন ফাইল বা সফটওয়্যার আপনার কম্পিউটারে ইন্সটল হয় তাহলে অবশ্যই সেগুলো স্ক্যান করে নিন।

৭. প্রোগ্রাম বা ফাইল ইনষ্টল ও আনইন্সটল না হওয়া: অনেক সময় আপনার কম্পিউটারের বিভিন্ন সফটওয়্যার আপনি ইন্সটল বা আনইন্সটল করতে পারছেন না। সেই সময় আপনার কম্পিউটারকে অবশ্যই স্ক্যান করে নেবেন। কারণ ভাইরাসে আক্রান্ত হলে এই ধরনের সমস্যা হতে পারে।

৮. অযথায় এরর মেসেজ দেখানো: আপনার কম্পিউটারের ঘনঘন যদি এরর মেসেস দেখায়, তাহলেও আপনার কম্পিউটারটি স্ক্যান করে নিন। ভাইরাস আক্রান্ত হলে কম্পিউটার বারবার এরর দেখায়।

৯. পপআপ উইন্ডো: আপনার কম্পিউটারের যদি ঘন ঘন পপআপ উইন্ডো আসে, সেক্ষেত্রে সেগুলো ইগনোর না করে কম্পিউটারটি একবার স্ক্যান করে নিন।

১০. অযথা বিজ্ঞাপন আশা: আপনার কম্পিউটারে যদিও অযথা কোনো ধরনের বিজ্ঞাপন আসে এবং সেটা বারবার আসে, সেক্ষেত্রে অবশ্যই কম্পিউটারের কোথা থেকে বিজ্ঞাপন আসে সেটা চেক করুন। যদি না পান, সেক্ষেত্রে অবশ্যই কম্পিউটার এন্টিভাইরাস দিয়ে স্ক্যান করে নিন।

পরিশেষে, আপনার কম্পিউটার যদি ভাইরাস আক্রান্ত হয়, সেক্ষেত্রে ভালো কোন কম্পিউটার এক্সপার্ট এর কাছে সেটা নিয়ে যাবেন। আপনার যদি ভাইরাস বা অ্যান্টিভাইরাস সম্বন্ধে ভালো জানাশোনা না থাকে, তাহলে নিজে নিজে কিছু করতে যাবেন না। এতে আপনার কম্পিউটারের ফাইলগুলো ডিলিট হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকবে।

আশা করি আজকের পোষ্টে মাধ্যমে তারা কিছু জানতে পেরেছেন।

সবাই ভালো থাকবেন, সুস্থ থাকবেন। আল্লাহ হাফেজ।

আমার ফেসবুক প্রোফাইল

2 thoughts on "কম্পিউটার বা ল্যাপটপ ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার লক্ষণ গুলো জেনে নিন"

  1. Sanjida Aktar Contributor says:
    SSD লাগিয়ে নেন, ঠিক হয়ে যাবে 😌
  2. Md Sohel Rana Contributor says:
    All Ok Ase…

Leave a Reply