Hello Everyone.

আসসালামুয়ালাইকুম।

আচ্ছা, যদিও এরকম পোস্ট ট্রিকবিডিতে আরো আছে কিন্তু আমি একটু বিস্তারিত আলোচনা করতে চাই। যারা জানেন (Just Ignore It) 🙂

বর্তমানে স্মার্টফোন আমাদের সুসময়ের দুঃসময়ের প্রতিদিনকার সঙ্গী। স্মার্টফোন ও ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা অনেক এবং তা দিন দিন বেড়েই চলেছে। আর ইন্টারনেট ব্যবহার করতে গিয়ে (নেটওয়ার্ক কানেক্টিভিটি) নিয়ে প্যারা খেয়েছেন এরকম মানুষ বাংলাদেশে খুব কমই পাওয়া যাবে।

পোস্ট টপিকঃ ফোনের ইন্টারনেট কানেকশন (week) থাকায় ইন্টারনেট কানেক্টিভিটি 4G to 3G হয়ে যাওয়ার কারন ও সমস্যা সমাধান।

মূলত যারা (week) ইন্টারনেট কানেকশন দিয়ে টুকটাক গেমিং ব্রাউজিং করেন তারা এ সমস্যা বেশি ভুগছেন হয়তো। যখন পাবজি, ফ্রী ফায়ার এসব অনলাইন গেম ইন্টারনেট ব্যবহার করে খেলেন তখন ইন্টারনেট কানেকশন স্ট্যাবল না হলে গেম খেলে তার মজা পাওয়া যায় না বিপরীতে আরো বিরক্তি বোধ করেন। আবার অনলাইনে ভিডিও স্ট্রিম করার সময় হঠাৎ করে ভিডিও আটকে গেলে বা (Buffer) নিলে ভালো লাগেনা।

যখন আপনার ইন্টারনেট কানেকশন স্লো থাকে অর্থাৎ যখন আপনার এরিয়ায় 3G নেটওয়াক 4G তুলনায় ভালো থাকে তখন নির্দিষ্ট একটা সময় পর ডিভাইস আপনাকে 3G নেটওয়ার্কে সুইচ করে দেয়। (অর্থাৎ যখন 4G নেটওয়ার্ক week থাকে)

বাংলাদেশের বিভিন্ন জায়গায় 3G ও 4G নেটওয়ার্কের ভিন্ন ধরনের স্পিড লক্ষ করলাম। যেমন আমার নিজের এরিয়ায় অনলি 3G করে ইন্টারনেট ব্রাউজ ও ডাউনলোড করলে স্পিড পাওয়া যায় না বললেই চলে, কিন্তু 4G ব্যবহার করলে ভালো চলে। আশেপাশের কতগুলো District এ Check করলাম এবং সেখানে লক্ষ করলাম 4G এর  তুলনায় 3G বেশি কার্যকরী, কিন্তু নোটিফিকেশন বার চেক করে দেখলাম সেখানে ইন্টারনেট সিগন্যাল 3G এর তুলনায় 4G এর সিগন্যাল ‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌বেশী দেখাচ্ছে। আচ্ছা যাই হোক, এর (মেজর) কোন সমস্যা সমাধান পদ্ধতি আমার জানা নাই, কারণ বাংলাদেশের নেটওয়ার্ক জন্মগতভাবেই স্লো।

কিন্তু কিছু ছোটখাটো সেটিংস ও টুলস আপনাদের কাছে শেয়ার করতে যাচ্ছি যা হয়ত একটু হলেও আপনাদের উপকারে আসবে।

Note: দুর্গম এলাকায় অনলি 4G LTE ব্যবহার করে ইন্টারনেট ব্যবহার করলে ইন্টারনেট কানেকশন বা  স্পিড ঠিকই স্ট্যাবল পাবেন কিন্তু সেই সাথে আপনি কোন ইনকামিং ও আউটগোয়িং ফোন কল করতে পারবেন না। 

সুবিধাঃ অনলি 4G করে নিলে আপনার ফোন ইচ্ছা মত আপনার পারমিশন ছাড়া 3G তে সুইচ করতে পারবে না। 🙂

আচ্ছা প্রথমে (Xiaomi Smartphone) এ কিভাবে কোনো এপ্স ছাড়া সেটিংস থেকে কিভাবে (Only 4G) এক্টিভেট করবেন সেটা দেখা যাক।

১. প্রথমে আমরা সেটিংস এ প্রবেশ করবো।

২. তারপর About Phone এ প্রবেশ করবো।

৩. About Phone এ প্রবেশ করার পর All Specs এ ক্লিক করবো।

৪. তারপর All Specs এ প্রবেশ করার পর একটু নিচের দিকে গেলেই Internal Storage নামে একটি অপশন পেয়ে যাবেন।

৫. Internal Storage এ দ্রুত একটানা তিনবার ট্যপ করলেই (You’re 2 steps or 1 step away) এরকম একটি পপআপ মেসেজ আসবে এবং একটানা তিনবার ক্লিক করলে Phone Info অপশনটি ওপেন হয়ে যাবে।

তারপর এরকম নিচের ছবির মতো দেখাবে।

৭. এখান থেকে আপনারা যে সিমে Only 4G একটিভেট করতে চান অর্থাৎ আপনার ফোনে যদি একের অধিক সিম থাকে সেক্ষেত্রে আপনি সিম ওয়ান সিম টু অপশন দেখতে পাবেন। যেমন আমি SIM-01 এ অনলি 4G করতে চাচ্ছি তো আমি সিম ওয়ান ডুকবো।

৮. তারপর এরকম একটি ইন্টারফেস দেখতে পাবেন, এখানে দেখুন আমার Default (LTE/UMTS auto (PRL) দেয়া আছে। এখানে ক্লিক করেই আপনারা (Only LTE) করে নিতে পারবেন।

তো এই হলো Xiaomi Phone এর Only 4G করার প্রসেস। এখানে সুবিধাটা এতোটুকুই Code Dial আপনকে Phone Info সেটিংস আর ডুকতে হবে নাহ্। অর্থাৎ কোড মুখস্ত অথবা সেইব করে রাখা লাগবে নাহ্।

 

আচ্ছা চলুন তাহলে দেখা যাক কিভাবে কোড ডায়াল করে ফোন ইনফো সেটিংসে ডুকবেন এবং অনলি 4G এক্টিভেট করবেন।

Code: *#*#4636#*#*

প্রথমেই ডায়াল প্যাড এ গিয়ে উপরে যে কোড আছে সেটি ডায়াল করে নিবেন।

ডায়াল করার পর ফোন ইনফো সেটিংস ওপেন হয়ে গেছে। তারপর আপনি যে সিমে অনলি 4G অন করতে চান সেই সিম সিলেক্ট করে অনলি 4G (Activate) করে নিবেন।

 

তারপর দেখা যাক কিভাবে আমরা (Third-party) এপ্লিকেশন ইন্সটল দিয়ে তার মাধ্যমে ফোন সেটিংস ইনফো তে ঢুকব এবং (Only 3G to 4G)/(4G to 3G) এনেবেল করবো!

প্লে স্টোরে ধরনের অনেক অ্যাপস পেয়ে যাবেন। তার মধ্যে থেকে এমন দুইটা অ্যাপের লিঙ্ক আমি নিচে দিয়ে দিলাম।

1.

Play Store Link: Click Me To Download

2.

Play Store Link: Click Me To Download

 

আপনার ফোনের মধ্যে যদি একের অধিক অর্থাৎ দুটি সিম ব্যবহার করে থাকেন সেক্ষেত্রে কিভাবে ফোরজি এনএবল করবেন তা প্রথম অ্যাপটির ক্ষেত্রে এর প্রসেস নিচে দেখানো হলো।

১. প্রথমেই এপটি ওপেন করে নিন।

ওপেন করলেই এরকম একটি ইন্টারফেস দেখতে পাবেন।

এখানে দেখবেন (Dual SIM and Phone statistics) এরকম একটি (Option) পেয়ে যাবেন। তারপর এখানে প্রবেস করলেই SIM1 / SIM2 এর অপশন পেয়ে যাবেন।

তারপর সেই আগের মতো উপরের সেটিংস্ গুলো ফলো করুন। দেখবেন (Only 4G) এক্টিভেট হয়ে গেছে।

End 🙂

Bye…

Leave a Reply