বিসমিল্লাহহির রাহমানির রাহিম,
আসসালামু আলাইকুম,
আশা করি সকলেই ভালো আছেন। আল্লাহর অশেষ রহমতে আমিও ভালো আছি।
আজকে আমি আমার ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতা থেকে ওয়াই-ফাই বা ব্রডব্যান্ড এর ভালো সেবা পেতে কিছু টিপস দিবো। আশাকরি আপনাদের অনেকেরই কাজে আসবে।

আমি যেগুলো বিষয় নিয়ে বলবো, হয়তো এগুলো অনেকেই জানেন অথবা অনেকেই জানেন না! তবে বিষয়গুলো খু্বই গুরুত্বপূর্ণ।

আমরা যারা ওয়াই-ফাই ব্যবহার করি কখনো নেট সমস্যায় পড়িনি এমন একজনকেও খুঁজে পাওয়া যাবে না।

কখনো কখনো ইন্টারনেট সার্ভিস প্রভাইডার (ISP) এর যান্ত্রিক ত্রুটির জন্য এবং কখনো কখনো আমাদের যান্ত্রিক ত্রুটির জন্য নেট সমস্যা হয়ে থাকে। তবে এই যান্ত্রিক ত্রুটি ঘটে সাধারণত আমাদের অযত্নতার কারণে।

আমাদের বাসা বাড়িতে মূলতো ফাইবার অপটিক ক্যাবল বা RJ45 (cat5,cat6) ক্যাবল ও MC বা ONU এর মাধ্যমে ইন্টারনেট সংযোগ রাউটারে আসে এবং রাউটার হতে কম্পিউটার বা ল্যাপটপ ও মোবাইল ফোন বা অন্যান্য ইন্টারনেট ডিভাইসে ইন্টারনেট সংযোগ পৌঁছায়।এখানে রাউটার এবং ONU অথবা MC হচ্ছে চিপসেট সংযুক্ত ইলেকট্রনিক ডিভাইস।সহজ কথায় বলতে গেলে আমাদের মোবাইল ফোন গুলো যেমন একটি প্রসেসর এর মাধ্যমে সকল ডেটা প্রসেস করে থাকে সেগুলোও তেমনভাবেই প্রসেসর এর সাহায্যে ইন্টারনেট কানেকশন প্রসেস করে।

একটা বিষয় লক্ষ্য করুন, আমাদের হাতের মোবাইল ডিভাইসটি এতো দামী এবং এতো পাওয়ারফুল প্রসেসর সমৃদ্ধ হওয়ার পরেও দীর্ঘক্ষণ চালানোর পরে মাঝে মধ্যে হ্যাং করে বা ল্যাক দেখা দেয়।তাই আমরা মোবাইল ফোনটিকে রেগুলার রিবুট দেওয়া, রেস্ট দেওয়াসহ ইত্যাদি যত্নআত্তি করে থাকি।
অথচ যে রাউটার আমাদের ২৪ ঘন্টা ইন্টারনেট সাপ্লাই দিচ্ছে সেটার কোনো যত্নই নিচ্ছি না।

এবার আসুন মেইন পয়েন্ট এ!এখন হয়তো আপনাদের প্রশ্ন জাগছে রাউটারের যত্ন নিবেন কিভাবে?
হ্যাঁ এবার সেটাই বলবো-

◑আমাদের ব্যবহৃত রাউটারটি দামি হোক কিংবা কম দামী দৈনিক কমপক্ষে একবার বা দুইবার রিবুট করার চেষ্টা করবো,এতে রাউটারের ফার্মওয়্যার ভালোমতো কাজ করবে।

◑প্রায় সব রাউটারেই অটো রিবুট বা অটো রি স্টার্ট করা অপশন থাকে সেখানে একটা নির্দিষ্ট সময় ৫/১০/২৪ ঘন্টা সেটআপ করতে পারেন তাহলে ওই সময় পর পর রাউটারটি অটোমেটিক রিবুট হবে এবং আপনার মেনুয়ালী রিবুট করার ঝামেলা কমবে।

◑গুরুত্বপূর্ণ কাজ বা দীর্ঘক্ষণ ইন্টারনেট ব্যবহারের আগে ৫/১০ মিনিট রাউটারটি বিদ্যুৎ থেকে আন প্লাগ করে রেখে তারপর প্লাগ ইন করে কাজ শুরু করতে পারেন, এতে করে আপনার ইন্টারনেট পার্ফমেন্স বৃদ্ধি পাবে।

◑রাউটার এর এডমিন প্যানেল বা কন্ট্রোল প্যানেল এ গিয়ে ওয়্যারলেস সেটিং এ গিয়ে Wireless Channel 6 বা 11 এ ফিক্সড করে দিতে পারেন এবং রাউটারের কাছে থেকে ইন্টারনেট ব্যবহার করলে Channel Width 40 ও দূর থেকে ব্যবহার করলে 20 তে সেট করতে পারেন। তাহলে নেট সমস্যা অনেকখানি দূর হবে।

◑আপনার ওয়াই-ফাই কেউ চুরি করে চালালে ম্যাক ফিল্টার (MAC Filter) চালু করে দিতে পারেন, এতে করে আপনার অনুমতি ব্যতিত কেউ কানেক্ট করতে পারবে না।

◑কন্ট্রোল প্যানেল এর ডিফল্ট পাসওয়ার্ড অবশ্যই চেঞ্জ করবেন।

◑রাউটারকে ফ্লোরে কিংবা কোনো কোনো বাক্সের ভিতরে রাখবেন না, শুকনো, ঠান্ডা এবং উচু টেবিলে রাখার চেষ্টা করুন।এতে রেঞ্জ বেশি পাবেন।

◑রাউটার ৬মাস কিংবা ১বছর পর পর রিসেট করুন এতে করে পুরোনে সব সেটিং ও ডেটা ক্লিন হয়ে গিয়ে সব রিসেট হবে এবং পার্ফমেন্স বৃদ্ধি পাবে।

◑একটি রাউটার অনেক বছর ধরে ব্যবহার না করে, সম্ভব হলে নতুন রাউটার কিনুন। কেনোনা পুরনো হলে এমনিতেই পারফর্মেন্স কমে যায়।

আজকের মতো এগুলোই, আশাকরি আপনাদের কাজে আসবে। আল্লাহ হাফিজ। আসসালামু আলাইকুম।

- ফেসবুকে আমি

8 thoughts on "আপনি কি ওয়াই-ফাই/ব্রডব্যান্ড ইউজার,কিন্তু নেট স্পিড স্লো? বেস্ট ইন্টারনেট স্পিড পেতে পোস্টটি পড়ুন।"

  1. ভাই রাউটার কত বছর পর পর চেঞ্জ করলে ভালো হয় <\b<
    1. vai eta nirvor korbe apnar router er usage er upore..jokhon dekhben j apnar router bar bar hang hocche…net suply dite parteche na ..tokhon change korben.
  2. Russell_Khan Contributor says:
    পোস্টটি অনেক হেল্পফুল ধন্যবাদ ব্রো
    1. ওয়েলকাম ভাইয়া🥰🥰
  3. Bokul Serker Contributor says:
    helpfull post

Leave a Reply