হ্যালো বন্ধুরা আজ আমি কোন অ্যাপ গেম বা কোন টেকনিক্যাল কিছু শেয়ার করবো না। আজ আমি আপনার জন্য একটু অন্য ধরনের বিষয় তুলে ধরব।
যা প্রত্যেকটি ছেলে পড়া উচিত বলে আমি মনে করি। আজকের পোস্টের মাধ্যমে আমি একটা নিউজ শেয়ার করবো আপনাদের সাথে এখন আপনি বলতে পারেন ট্রিকবিডি কি নিউজ শেয়ার করার জায়গা?
মানলাম ভাই এটা কোন নিউজ কিন্তু আজকের বিষয়টা আপনাদের সবার জেনে রাখা দরকার তাই পোস্ট করলাম।
তাই পোস্টটি যদি আপনি একবার পড়তে থাকেন তাহলে রিকোয়েস্ট করব সম্পুর্ন পড়ার জন্য।
একজন রিলেশন শিপের বেস্ট পার্ট হচ্ছে সারপ্রাইজ দেওয়ার ব্যাপারটা এই যেমন বয় ফ্রেন্ড গার্ল ফ্রেন্ড কে সারপ্রাইজ দেয় আবার সাম টাইম দেখা যাই গার্লফ্রেন্ড ও না না ভাবে বয় ফ্রেন্ড কে সারপ্রাইজ দেয়।
যদিও সব থেকে বেশি দেখা যায় ছেলেরাই বেশি সারপ্রাইজ দেয় বাট মেয়েরাও কিন্তু দেয়।😉
মাঝে মাঝে এমন এমন সারপ্রাইজ দেয় যে সেই সারপ্রাইজ এর চাপ সামলাতে না পেরে কেউ কেউ কোমায় পর্যন্ত চলে যায়। 😁

এমন কথা বলছি কারন রিসেন্টলি ভারতের নয়াদিল্লিতে এমন একটি ঘটনা ঘটেছে এবং সোশ্যাল মিডিয়ায় এই নিউজ টা রীতিমতো ভাইরাল হয়ে গিয়েছে।
ঘটনাটি হচ্ছে রাকিব নামে এক ১৮ বছর বয়সী ছেলে ১৪ জন মেয়ের সাথে একসাথে প্রেম চালাইতো। 😇 বাট সবই ঠিকঠাক ছিল কিন্তু মাঝখান দিয়ে তার লাইফে আসলো জিনিয়ার।
এবং রাকিবের মোবাইলে দেখতে পায় বেবি গার্ল ১ বেবি গার্ল ২ -৩ অনেক জনের নাম্বার সেভ করা ব্যাস জিনিয়ার মাথায় আগুন জ্বলে যায়।😠
সবার সাথে কন্টাক করে এবং দেখিয়ে দেয় ওবেন পাওয়ার কাকে বলে একেবারে ১৪ জনকে নিয়ে হাজির হয়ে যাই রাকিবের বাসায়। ☺
বেচারা রাকিব তখন সকালবেলা ঘুম থেকে উঠেছিল উঠেই ১৪ জনের মুখ একসাথে দেখে চাপ সামলাতে পারিনি এক্কেবারে বেহুঁশ হয়ে কোমায় চলে যাই।😑
এখনো পর্যন্ত তার জ্ঞান ফেরার কোন সংবাদ ও আসে নি।😀
ওয়েল বেঁচে গেছো রাকিব কোমায় না গেলে তোমার এই ১৪ জনের মার খেয়ে তোমাকে উপরে চলে যেতে হত একদম শিওর।😁
বাবা প্রেম করবো তো ভালো কথা দেখে শুনে প্রেম করো বেবি গার্ল ওয়ান টু থ্রি এটা কেমন নাম্বার সেভ করার উপায় নাম ও মনে থাকতো না তোমার?😁
ওয়েল আমার তো মনে হয় এই রাকিবের এতগুলা গার্লফ্রেন্ড মেন্টেন করতে করতে এমনিতেই অবস্থা খারাপ হয়ে যেত।😇
আর ১৮ বছর বয়সে ১৪ টা গার্লফ্রেন্ড কত বছর বয়স থেকে প্রেম শুরু করেছো ভাই?☺
যাই হোক ছেলেদের উদ্দেশ্যে বলছি সময় থাকতে সাবধান হন সিঙ্গেল থাকলে তো খুবই ভালো কথা বাট কখনো যদি রিলেশনশিপে জড়ান তাহলে একের বেশি কখনোই নয় এই ব্যাপারটা মাথায় রেখেন।
আর যদি ডাবল করার চিন্তা থেকেও থাকে তাহলে নিজের লাইফের রিক্স নিজেকেই নিতে হবে। বিকজ ভাই দিন বদলিয়েছে মেয়েদের মন ভাঙলে মেয়েরা ভাঙ্গে না ফুঁপিয়ে ফুঁপিয়ে কেঁদে এখন আর মেয়েরা বালিশ ও ভিজায় না।
উল্টো তোমাকে মেয়েরা ভিতর থেকে ভেঙে ছোট ছোট পিস করে দিবে so best of luck for that.👍
তো বন্ধুরা ১৪ জন প্রেমিকার একমাত্র প্রেমিকের এই দুর্দশার কথা ভেবে আপনার কেমন লাগলো কমেন্ট করে জানিয়ে দিন আপনার মতামত।

Leave a Reply